শিশু মমিতার হার্টে দু’টি ছিদ্র ॥ তাকে বাঁচাতে আর্থিক সহায়তার প্রয়োজন

PIC-02gMomitaগাইবান্ধা থেকে আঃ খালেক মন্ডল : জেলা শহরের মধ্যপাড়ার ইউএনও ক্লাব সংলগ্ন দরিদ্র গার্মেন্টস কর্মী জেলার সাবেক কৃতি টেবিল টেনিস খেলোয়াড় মমিনুল ইসলাম ও রাশিদা বেগমের দু’মাস ২ দিন বয়সের ফুটফুটে শিশু কন্যা মমিতা সুষ্ঠু চিকিৎসার অভাবে এখন মৃত পথযাত্রী। তার হার্টে জন্ম থেকেই দুটি ছিদ্র রয়েছে। সে ন্যাশনাল হার্ট ফাউন্ডেশনের কনসালটেন্ট কার্ডিওলজির চিকিৎসক ডাঃ আব্দুল্লাহ-আল-মাহমুদ ও গাইবান্ধার শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ আব্দুল মালেক সরকারের কাছে চিকিৎসাধীন। তারা উভয়ই প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে মমিতার পিতা-মাতাকে পরামর্শ দিয়েছেন এই শিশুটিকে বাঁচাতে হলে জরুরী ভিত্তিতে ঢাকা হার্ট ফাউন্ডেশনে অথবা অন্য কোথাও উন্নত চিকিৎসার প্রয়োজন। সেজন্য কমপক্ষে ৩ লাখ টাকা ব্যয় হবে। কিন্তু গার্মেন্টস কর্মী মমিনুল ইসলামের পক্ষে এত টাকা সংগ্রহ করা সম্ভব নয়। তাই অসহায় দরিদ্র এই পিতা-মাতা তাদের প্রথম সন্তানের জীবন রক্ষার্থে বিত্তবান ও হৃদয়বান মানুষদের কাছে আর্থিক সহায়তা কামনা করেছেন। এব্যাপারে সব রকম যোগাযোগ করা যাবে পিতা মমিনুল ইসলামের ০১৯১১-৭৯৩২১৫ মোবাইল ফোনে। এছাড়া ওই একই নম্বরে বিকাশেও ওই শিশুটির জীবন বাঁচাতে আর্থিক সহায়তা প্রদান করা যাবে।

Facebook Comments

Leave a Reply