রেলমন্ত্রীর সঙ্গে ভারতীয় হাইকমিশনারের সাক্ষাৎ

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনার রীভা গাঙ্গুলি দাশ রেলপথমন্ত্রী মো. নুরুল ইসলাম সুজনের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেছেন। মঙ্গলবার রেলভবনে এই সাক্ষাৎ অনুষ্ঠিত হয়।

সাক্ষাৎকালে ভারতীয় অর্থায়নে বাংলাদেশ রেলওয়েতে যেসব প্রকল্প চলমান আছে সেগুলোর বিষয়ে আলোচনা করেন তারা। বিশেষ করে ঢাকা থেকে টঙ্গী পর্যন্ত তৃতীয় ও চতুর্থ এবং টঙ্গী থেকে জয়দেবপুর পর্যন্ত ডাবল লাইন নিয়ে তাদের মধ্যে আলোচনা হয়।

চিলাহাটি থেকে হলদিবাড়ি পর্যন্ত নতুন লাইন নির্মাণ করা হচ্ছে। সেখানে ভারতের অংশের ১৫০ মিটার নির্মাণ করলে বাংলাদেশের সাথে ভারতের যোগাযোগ চালু করা সম্ভব। এটি যাতে আগামী ডিসেম্বরের মধ্যে চালু করা যায় সে বিষয়ে রেলপথমন্ত্রী ভারতীয় হাইকমিশনারকে অনুরোধ জানান।

অন্যদিকে পঞ্চগড় থেকে বাংলাবান্ধা পর্যন্ত নতুন রেললাইন নির্মিত হলে শিলিগুড়ি পর্যন্ত ট্রেন চালানো যাবে, সে বিষয়েও আলোচনা করেন রেলপথমন্ত্রী। এ সময় দুই দেশের মধ্যকার চালু কার্গো ও পণ্যবাহী ট্রেন বিষয়ে আলোচনা হয় এবং এটি দুই দেশের মধ্যে যোগাযোগের ক্ষেত্রে একটি বড় সাফল্য বলে আলোচনা হয়।

সাক্ষাতে তারা ভারতের উপহার দেয়া দশটি ইঞ্জিন সম্পর্কে আলোচনা করেন। এছাড়া ইঞ্জিনগুলোর সক্ষমতা অনেক ভালো সে সম্পর্কে রেলপথ মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ভারতীয় হাইকমিশনকে জানানো হয়।

আলোচনাকালে সিরাজগঞ্জে কন্টেইনার ডিপো নির্মাণবিষয়ক এবং পার্বতীপুরে ভারতীয় অর্থায়নে একটি কোচ কারখানা নির্মাণ বিষয়ে আলোচনা হয়। এ বৈঠকে ভবিষ্যতে দেশের রেল যোগাযোগ ক্ষেত্রে উভয় দেশের সম্পর্ক আরও বৃদ্ধি পাবে বলে আশা প্রকাশ করেন তারা।

সাক্ষাৎকালে রেলপথ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সেলিম রেজা, বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালক মো. শামসুজ্জামান উপস্থিত ছিলেন।

Facebook Comments