খুলনায় ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে জেলা প্রশাসনের ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ

খুলনার উপকূলীয় উপজেলা কয়রা ও পাইকগাছায় ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে খুলনা জেলা প্রশাসন ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করে। খুলনা-৬ আসনের সংসদ সদস্য মোঃ আক্তারুজ্জামান বাবু ও জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেন আজ (শুক্রবার) সারাদিন কয়রা ও পাইকগাছা উপজেলায় ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ক্ষতিগ্রস্ত বিভিন্ন এলাকা সরেজমিনে পরিদর্শন করেন এবং ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন। ত্রাণ সমগ্রীর মধ্যে ছিলো ঢেউ টিন, শুকনা খাবার, সুপেয় পানি ও নগদ অর্থ।
ত্রাণ বিতরণকালে সংসদ সদস্য মোঃ আক্তারুজ্জামান বাবু বলেন, এ অঞ্চলের বেড়িবাঁধগুলো ১৯৭২ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আমলে তৈরি হয়। তারপর থেকে বিভিন্ন সময়ে শুধুমাত্র বাঁধগুলো সংস্কার করা হয়েছে। কিন্তু এখন বৈশ্বিকভাবে জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে সিডর, আইলা ও আম্পানের মতো দুর্যোগে বেড়িবাঁধগুলো টিকে থাকতে পারছে না। তাই তিনি এ অঞ্চলের বেড়িবাঁধগুলো টেকসইভাবে নির্মাণের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি অনুরোধ জানান।
জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেন জানান, খুলনা জেলার উপকূলীয় বেড়িবাঁধগুলো টেকসইভাবে নির্মাণের জন্য একনেকে প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে এবং তা অল্প সময়ের মধ্যে অনুমোদন হবে। এছাড়া ক্ষতিগ্রস্ত বেড়িবাঁধগুলো মেরামতের জন্য বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ইঞ্জিনিয়ারিং কোর ও পানি উন্নয়ন বোর্ড স্থানীয় প্রশাসনের সহযোগিতায় কাজ করার জন্য ইতোমধ্যে মাঠে নেমেছে। তিনি আরও বলেন, ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত প্রতিটি পরিবার যেন শতভাগ সরকারি সহায়তা পায় সে ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের নির্দেশনায় খুলনা জেলা প্রশাসন কাজ করে যাচ্ছে।
ত্রাণ বিতরণকালে কয়রা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এসএম শফিকুল ইসলাম, পাইকগাছা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান গাজী মোহাম্মদ আলী, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) জিয়াউর রহমান, উপজেলা নির্বাহ অফিসার, পানি উন্নয়ন বোর্ড ও জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। তথ্যসূত্র : পিআইডি