মার্চ ৯, ২০২১

Latest News Before Everyone in Bangladesh

কোভিড-১৯ নিয়ে নাসার স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জ

১ min read

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক : স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জের বিশেষ ইভেন্ট ‘নাসা স্পেস অ্যাপস কোভিড-১৯ চ্যালেঞ্জ’ আয়োজন করতে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা।

বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস) এবং বেসিস স্টুডেন্টস ফোরামের উদ্যোগে এই আয়োজনে অংশ নেবে বাংলাদেশ। আগামী ৩০ ও ৩১ মে আয়োজিত হবে এই চ্যালেঞ্জ।

নাসা বিশ্বব্যাপী প্রোগ্রামার, উদ্যোক্তা, বিজ্ঞানী, ডিজাইনার, স্টোরিটেলার, মেকার, বিল্ডারস, প্রযুক্তিবিদসহ সবাইকে ‘#স্পেসঅ্যাপস কোভিড-১৯ চ্যালেঞ্জ ভার্চুয়াল গ্লোবাল হ্যাকাথন’ এ অংশগ্রহণের আহ্বান জানিয়েছে। তারই ধারাবাহিকতায় বেসিসের পক্ষ থেকে এই আয়োজনে অংশ নেওয়ার জন্য বাংলাদেশের শিক্ষার্থীদের আহ্বান জানানো হয়েছে।

আগ্রহীদের https://covid19.spaceappschallenge.org ওয়েবসাইটে গিয়ে ভার্চুয়াল টিম গঠন করতে হবে এবং নাসার ওপেনসোর্স আর্থ অবজারভেশন ডাটার মাধ্যমে কোভিড-১৯ সম্পর্কিত চ্যালেঞ্জ সমাধানের উপায় উদ্ভাবন করতে হবে।

বেসিসের পরিচালক ও বেসিস স্টুডেন্টস ফোরামের আহ্বায়ক দিদারুল আলম সানি বলেন, প্রতিবারের ন্যায় এবারও আমরা নাসা স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জে অংশগ্রহণ করছি। চলমান মহামারিকে বিবেচনায় রেখে এবার চারটি বিষয়ে প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়েছে। এগুলো হলো- লোকাল রেসপন্স/চেঞ্জ অ্যান্ড সল্যুউশন, ইমপ্যাক্ট অব কোভিড-১৯ অন দ্য আর্থ সিস্টেম/আর্থ সিস্টেম রেসপন্স, লার্নি অ্যাবাউট দ্য ভাইরাস অ্যান্ড ইটস স্প্রেড ইউজিং স্পেস-বেইজড ডাটা এবং ইকোনমিক অপরচুনিটি ইমপ্যাক্ট অ্যান্ড রিকোভারি ডিউরিং অ্যান্ড ফলোয়িং কোভিড-১৯। আগ্রহীদের এই আয়োজনে অংশগ্রহণের আহ্বান জানাচ্ছি। তবে, ‘নাসা স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জ’ এর নিয়মিত আয়োজন বরাবরের মতো এবারও অনুষ্ঠিত হবে।

আগামী ৩০ ও ৩১ মে নাসা, ইউরোপিয়ান স্পেস এজেন্সি (ইএসএ) এবং জাপান অ্যারোস্পেস এক্সপ্লোরেশন এজেন্সি (জেএএক্সএ) এই ভার্চুয়াল হ্যাকাথনের আয়োজন করবে।

৪৮ ঘণ্টার বিরতিহীন এই আয়োজনে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের অংশগ্রহণকারীরা তাদের উদ্ভাবনকে উপস্থাপন করবে।

এবারের চ্যালেঞ্জের মধ্যে রয়েছে কোভিড-১৯ ও এর বিস্তারে আর্থ সিস্টেমে কী প্রভাব পড়ে সেটি খুঁজে বের করা ও সমাধানের উপায় উদ্ভাবন করা। এছাড়া হ্যাকাথনে এই ভাইরাসের ফলে মানুষ ও অর্থনীতির উপর কী প্রভাব পড়ছে সেটিও পরীক্ষা করা হবে।

১৫ মে পর্যন্ত আগ্রহীরা নিবন্ধন করতে পারবেন। হ্যাকাথনের আগ পর্যন্ত ওয়েবসাইটের অনলাইন চ্যাট রুমের মাধ্যমে অন্য অংশগ্রহণকারীদের সাথে যোগাযোগ করা এবং দলের সদস্য খুঁজে বের করা যাবে। বিস্তারিত উল্লেখিত ওয়েবসাইট ও স্পেস অ্যাপসের টুইটার (@SpaceApps) ফিডে পাওয়া যাবে। আর ‘নাসা স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জ ২০২০’ অনুষ্ঠিত হবে অক্টোবরের শেষের দিকে।

Facebook Comments