বিশ্বকাপ জিততে ভারতের সামনে পাহাড় ডিঙানোর চ্যালেঞ্জ

স্পোর্টস ডেস্ক : নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনাল ম্যাচে ভারতীয় বোলারদের সঙ্গে রীতিমতো ছেলেখেলাই করলো অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটাররা। উইকেটের চারদিকে বাউন্ডারির ফুলঝুরি ছুটিয়ে তারা দাঁড় করিয়েছে ১৮৪ রানের পাহাড়সম সংগ্রহ। প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপ শিরোপা জিততে ভারতীয় নারী ক্রিকেট দলকে করতে হবে ১৮৫ রান।

অস্ট্রেলিয়ার বিখ্যাত মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে দুই ওপেনার এলিস হিলি ও বিথ মুনির বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ে নির্ধারিত ২০ ওভারে মাত্র ৪ উইকেট হারিয়েই ১৮৪ রান করে ফেলেছে স্বাগতিকরা। নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ইতিহাসে ফাইনাল ম্যাচে এটিই দলীয় সর্বোচ্চ সংগ্রহ।

নিজেদের পরিচিত মাঠে টস জিতে আগে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল চারবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। ডানহাতি এলিস হিলি ও বাঁহাতি বিথ মুনি উদ্বোধনী জুটিতেই ভারতকে ম্যাচ থেকে ছিটকে দেন। মজার বিষয় হলো- হিলি ও মুনি দুজনই উইকেটরক্ষক ব্যাটার। তবে সাধারণত হিলিই দাঁড়ান উইকেটের পেছনে।

এ দুই ডানহাতি-বাঁহাতির আক্রমণাত্মক ব্যাটিংয়ে মাত্র ১১.৪ ওভারেই ১১৫ রানের উদ্বোধনী জুটি পায় অস্ট্রেলিয়া। মনে হচ্ছিলো, প্রথমবারের মতো ফাইনাল ম্যাচে সেঞ্চুরি তুলে নেবেন হিলি। কিন্তু দ্বাদশ ওভারে তিনি আউট হয়ে যান ৭৫ রান, তাও মাত্র ৩৯ বল খেলে।

বিধ্বংসী এই ইনিংসে ৭টি চারের সঙ্গে ৫টি বিশাল ছক্কা হাঁকিয়েছেন হিলি। এ উইকেটরক্ষক ব্যাটারের আরেকটি পরিচয় হলো তিনি অস্ট্রেলিয়া পুরুষ ক্রিকেট দলের গতিতারকা মিচেল স্টার্কের স্ত্রী। আজ গ্যালারিতে বসেই নিজের স্ত্রীর বিধ্বংসী রূপ দেখেছেন স্টার্ক।

হিলির উপস্থিতিতে রয়েসয়েই খেলছিলেন মুনি। তবে প্রথম উইকেট পতনের পর বেরিয়ে আসেন খোলস থেকে। ভারতীয় বোলারদের উইকেটের চারপাশে খেলে তুলে নেন হাফসেঞ্চুরি। শেষপর্যন্ত তিনি অপরাজিত থাকেন ৫৪ বলে ৭৮ রানের ইনিংস খেলে। চলতি বিশ্বকাপের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকও তিনি।

মূলত দুই ওপেনারের সত্তোরোর্ধ্ব দুই ইনিংসে ভর করেই ১৮৪ রানের বিশাল সংগ্রহ পেয়েছে অস্ট্রেলিয়া। এছাড়া অধিনায়ক ম্যাগ ল্যানিং করেছেন ১৬ বলে ১৬ রান। বাকি তিন ব্যাটসম্যানের কেউই দুই অঙ্কে যেতে পারেননি। প্রথমবারের মতো শিরোপা জিততে ভারতকে টপকাতে হবে অস্ট্রেলিয়ার এই পাহাড়।