বেনাপোল ইমিগ্রেশনে সার্ভার ত্রুটি, দীর্ঘ লাইনে যাত্রীরা

এস এম মারুফ, শার্শা (যশোর) প্রতিনিধি : যশোরের বেনাপোল চেকপোস্ট আন্তর্জাতিক ইমিগ্রেশনে সার্ভার ত্রুটি দেখা দেয়ায় পাসপোর্টের সকল কাজ অচল হয়ে পড়েছে। এতে করে চরম ভোগান্তীতে পড়েছে দেশ-বিদেশি পাসপোর্ট যাত্রীরা। একে প্রচন্ড গরম এরপর সার্ভার ত্রুটিতে পড়েছে যাত্রীদের দীর্ঘ লাইন।

সোমবার (২২ জুলাই) সকাল সাড়ে ৬টা থেকে সার্ভার অচল রয়েছে বলে জানান ভুক্তভোগী যাত্রীরা।

জানা যায়, ব্যবসা, চিকিৎসাসহ প্রয়োজনীয় কাজে প্রতিদিন এ পথে সাড়ে ৫ থেকে ৭ হাজার পাসপোর্টধারী যাত্রী যাতায়াত করে থাকে। কিন্তু মাঝে মধ্যেই কম্পিউটারে অনলাইন প্রক্রিয়ায় পাসপোর্টের কাজ করতে যেয়ে সার্ভার সমস্যায় আটকা পড়েন যাত্রীরা।

ভারতগামী পাসপোর্টে যাত্রী রাতুল সাহা সোমবার সকাল ৮ টায় ইমিগ্রেশন ভবনে জানান, তিনি ভোর ৬টা থেকে ইমিগ্রেশনে লাইনে দাঁড়িয়ে আছেন। কম্পিউটারের অনলাইনে সমস্যার কারণে পাসপোর্টের কাজ হচ্ছে না। এ ধরনের সমস্যায় এখানে বিকল্প ব্যবস্থা থাকা দরকার বলেও মনে করেন তিনি।

যাত্রী শরিফুল ইসলাম বলেন, সার্ভার সমস্যায় প্রায় দেড় ঘন্টা তিনি পরিবার নিয়ে ইমিগ্রেশনে লম্বা লাইনে দাঁড়িয়ে আছেন। কিন্তু এখানে যাত্রীদের বসার কোন ব্যবস্থা না থাকায় এ দূর্ভোগ ও অস্বস্তিকর পরিবেশ আরো বেশি ঘনীভূত হচ্ছে।

বেনাপোল ইমিগ্রেশনের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল বাশার জানান, তাদের ইঞ্জিনিয়াররা দ্রুত সার্ভার সচলের চেষ্টা করছেন। সচল হলেই পাসপোর্টের কার্যক্রমও দ্রুত শুরু হবে।

যানা যায়, প্রতিদিন ভোর সাড়ে ৬টা থেকে বেনাপোল ইমিগ্রেশন দিয়ে ভারত-বাংলাদেশের মধ্যে পাসপোর্ট যাত্রী যাতায়াত শুরু হয়। আগে পাসপোর্টের আনুষ্ঠানিকতা সম্পূর্ণ হতো হাতে কলমে। এখন সে কাজ করতে হয় সম্পূর্ণ অনলাইন প্রক্রিয়ায়। আর যাত্রীদের সকল তথ্য সেখানে সংরক্ষণ থাকে। তাই সার্ভার সচল না হলে কাজ করা সম্ভব হয় না।

এদিকে বেনাপোল ইমিগ্রেশন ভবনে পাসপোর্ট যাত্রীদের বিশ্রামের কোন ব্যবস্থা নেই। বেনাপোল ইমিগ্রেশন ভবনের আন্তর্জাতিক টার্মিনাল থাকলেও সেখানে শতাধিক যাত্রীর বিশ্রমেরও জায়গা নেই। ফলে এ ধরনের সমস্যায় পড়লে যাত্রীদের দূর্ভোগের সীমা থাকে না।

Facebook Comments