শহীদ মিনারে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপি চেয়ারপারসনের শ্রদ্ধা

preঢাকা, ২১ ফেব্রুয়ারি: মহান ২১ ফেব্রুয়ারিতে জাতি বিনম্র শ্রদ্ধায় স্মরণ করছে ভাষা আন্দোলনের শহীদদের। শুক্রবার একুশের প্রথম প্রহরে শহীদ মিনারে পুষ্প স্তবক অর্পণ করে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ এডভোকেট , প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া।

রাত ১২টা ১ মিনিটে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী। এর কিছু সময় পর শ্রদ্ধা জানান বিএনপি চেয়ারপারসন।
এদিকে জাতীয় সংসদের স্পিকার, ডেপুটি স্পিকার, ঢাকায় নিযুক্ত বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত, তিন বাহিনী প্রধান, রাজনৈতিক দল, বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনসহ বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষও শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পন করেছেন।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মন্ত্রিসভার সদস্য, সংসদ সদস্য ও দলীয় নেতৃবৃন্দদের সঙ্গে নিয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের পক্ষে শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন। তারপরই জাতীয় সংসদের স্পিকার শিরিন শারমিন চৌধুরী, ডেপুটি স্পিকার এডভোকেট ফজলে রাব্বি পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন। এর কিছু সময় পর বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে বিপুল সংখ্যক বিএনপির নেতা-কর্মী শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।
এদিকে রাত বাড়ার সাথে সাথে শহীদ মিনারে মানুষের ঢল বাড়ছে। রাত ১২টা ১ মিনিট বাজার অনেক আগে থেকেই কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করতে রাস্তায় সারি সারি মিছিল জড়ো হয়েছে। এ লক্ষ্যে কঠোর নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে ফেলা হয় পুরো কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকা।
২০০০ সাল থেকে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে পালন করে আসছে বিশ্ব। ১৯৯৯ সালের ১৭ নভেম্বর ইউনেস্কো একুশে ফেব্রুয়ারিকে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে স্বীকৃতি দেয়। এরপর থেকে সারা বিশ্বের বিভিন্ন ভাষাভাষির লোকজন দিবসটি পালন করে।
১৯৫২ সালের এই দিন রাষ্ট্রভাষা বাংলার দাবিতে শহীদ হন রফিক উদ্দিন আহমেদ, আবুল বরকত, আবদুল জব্বার, আবদুস সালামসহ আরও অনেকে।
ঢাকার পাশাপাশি দেশের অন্যান্য জেলায়ও শহীদ মিনারে একুশের প্রথম প্রহর থেকে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানো হবে।
ভাষা শহীদদের স্মরণে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখা হবে। সরকারি-বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল ও রেডিও বিশেষ অনুষ্ঠান সমপ্রচার করবে। এছাড়া ভাষা আন্দোলনের ঐতিহ্য ও গৌরবের কথা স্মরণ করে জাতীয় দৈনিকগুলো বিশেষ ক্রোড়পত্র প্রকাশ করবে।

Facebook Comments