চতুর্থবারের মতো নেপালের প্রধানমন্ত্রী বাহাদুর দেউবা

চতুর্থবারের মতো নেপালের নতুন প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হয়েছেন নেপালি কংগ্রেসের নেতা শের বাহাদুর দেউবা। আজ বুধবার শের বাহাদুর দেউবা প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেবেন।

গত ১০ বছরে এই নিয়ে ১০ বার প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনের সাক্ষী হয়েছে প্রতিবেশী ছোট্ট এই দেশটি। রাজতন্ত্রের অবসানের পর থেকেই প্রবল রাজনৈতিক ডামাডোল চলছে নেপালে। তার জেরেই এত কম সময়ের মধ্যে এতবার সরকার বদল। রাজতন্ত্র থাকাকালীন দেউবা তিনবার নেপালের প্রধানমন্ত্রী হয়েছিলেন। কিন্তু রাজতন্ত্রের পতনের পর শের বাহাদুর দেউবা এই প্রথমবার নেপালের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হলেন।

দেউবা এখন নেপালের বৃহত্তম রাজনৈতিক দল নেপালি কংগ্রেসের চেয়ারম্যান। তবে ৫৯৩ আসনের পার্লামেন্টে নিরঙ্কুশ গরিষ্ঠতা কোনও দলেরই নেই। তাই গত ১০ বছর ধরেই একের পর এক জোট সরকার নেপালকে শাসন করছে। দুই সপ্তাহ আগে মাওবাদী নেতা পুষ্পকমল দহল ওরফে প্রচণ্ড নেপালের প্রধানমন্ত্রী পদ থেকে ইস্তফা দেন। সেই থেকে পদটি খালিই ছিল।

মঙ্গলবার নেপালের পার্লামেন্ট নেপালি কংগ্রেসের শের বাহাদুর দেউবাকে পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী হিসেবে বেছে নিল। দেউবার পক্ষে ভোট পড়েছে ৩৮৮টি। বিপক্ষে ভোট পড়েছে ১৭০টি। ৩৫ জন ভোট দেননি। প্রচণ্ডর দল কমিউনিস্ট পার্টি অব নেপাল- মাওইস্ট সেন্টার দ্বিতীয় বৃহত্তম শরিক হিসেবে দেউবার সরকারে সামিল হচ্ছে।

Facebook Comments