দামুড়হুদার হাউলি ইউনিয়ন চেয়ারম্যানের অপসারন সহ নির্বাচনের দাবীতে মানব বন্ধন

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি : দীর্ঘদিন মেয়াদ উত্তিন্ন হওয়া চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার হাউলি ইউনিয় পরিষদের নির্বাচনের সকল প্রকার প্রস্তুতি সম্পন্ন হওয়ার পর নির্বাচনের দুই দিন বাকি থাকতে নির্বাচন স্থগিত হওয়ায় ইউনিয়ন বাসী ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী শাহা মিন্টুর বিরুদ্ধে ফুসে উঠেছে। ইউনিয়ন চেয়ারম্যান এর অপসারন করে দ্রুত নির্বাচনের দাবীতে ইউনিয়ন পরিষদের সামনে মানববন্ধন করেছে ইউনিয়ন বাসী। রোববার সকাল ১০টার দিকে ঘন্টা ব্যাপি মানববন্ধন করা হয়।
জানা যায়, ১৬ এপ্রিল জেলার দামুহুদা উপজেলার হাউলি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিলো। এরই মাঝে নির্বাচনের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়। এর আগে নির্বাচনি এলাকার লোখনাথপুর গ্রামের মৃত্যু আকরাম আলীর ছেলে আকবার আলী ইউনিয়ন বিভাজনের জন্য মহামান্য হাইকোর্টে একটি রিট আবেদন করেন। উক্ত রিট আবেদনের পৃক্ষিতে মহামান্য আদালত  ১৩ এপ্রিল ২মাসের জন্য নির্বাচন স্থগিত করেন। নির্বাচনের সকল রকম প্রস্তুুস্তি সম্পন্ন হওয়ার মাত্র ৭২ ঘন্টা আগে নির্বাচন স্থগিত হওয়ায় প্রার্থীসহ নির্বাচনি এলাকার লোকজন বর্তমান চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী শাহ নিজের লোক দিয়ে হাইকোর্টে রিট করে নির্বাচন স্থগিত করেছে বলে দোশারুপ করতে থাকে। এরই প্রেক্ষিতে রোববার সকাল ১০টার দিকে প্রার্থীরাসহ নির্বাচনি এলাকার ভোটাররা বর্তমান চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী শাহার অপসারনসহ দ্রুত নির্বাচনের দাবীতে মানব বন্ধন করে। এব্যাপারে চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী শাহা বলেন, ইউনিয়নের একজন ভোটার মহামান্য হাইকোর্টে ইউনিয়ন বিভাজনের জন্য রিট আবেদন করলে মহামান্য হাইকোর্ট দুই মাসের জন্য নির্বাচন স্থগিত হরেন। আমি আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশিল আমি এব্যাপারে কিছুই জানিন । দামুড়হুদা মডেল থানার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবু জিহাদ ফকরুল আলম খান জানান,হাইকোর্টের আদেশে নির্বাচন স্থগিত হয়েছে এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে কেউ বিশৃংখলা করলে তাকে ছাড় দেওয় হবেনা।
উল্লেখ্য, এর আগে গত ২৮ মে জেলার দামুড়হুদা উপজেলার সকল ইউনিয়নে নির্বাচন হলেও জয়রামপুর গ্রামের ইউনুছ আলী মোল্লা ওরফে নুনু মোল্লার একই দাবিতে মহামান্য হাইকোর্টের রিট আবেদনের প্রেক্ষিতে নির্বাচন স্থগিত হয়ে যায়।

Facebook Comments