স্থানীয় দুই তরুণের ঝলকে পূর্ণ পয়েন্ট আবাহনীর

স্থানীয় দুই তরুণের ঝলকে পূর্ণ পয়েন্ট আবাহনীর

বিশেষ সংবাদদাতা : বিদেশিরা ম্যাচ জেতান- বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের বেশিরভাগ ম্যাচেই ঘটে এমনটি। কিন্তু ঈদ বিরতি কাটিয়ে মাঠে খেলা ফেরার প্রথম দিনে তিনটি ম্যাচ জিতিয়েছেন স্থানীয় ফুটবলাররা।

রাজশাহীতে পুলিশকে জিতিয়েছেন শেখ বাবলু, বসুন্ধরা কিংস এরেনায় সাইফকে জিতিয়েছেন রিয়াদুল হাসান এবং সিলেটে আবাহনীকে জিতিয়েছেন মেহেদী হাসান রয়েল ও জুয়েল রানা। শনিবার সিলেটে আবাহনী স্থানীয় দুই তরুণের গোলে ২-১ ব্যবধানে হারিয়েছে রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস সোসাইটিকে।

আবাহনীর প্রতিটি ম্যাচই এখন গুরুত্বপূর্ণ। কিংসের পেছনে পেছনে এগিয়ে চলা আকাশী-নীলদের পা হড়কালেই বিপদে। শনিবার যেমন সিলেটে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে থাকা আবাহনীর জালে শেষ দিকে বল পাঠিয়ে ভয় ধরিয়ে দিয়েছিল রহমতগঞ্জ। যদিও ব্যবধান কমালেও ম্যাচে ফেরার সময় আর সাধ্য ছিল না পুরনো ঢাকার ক্লাবটির।

১৩ মিনিটে মেহেদী হাসান রয়েলের গোলে এগিয়ে যায় আবাহনী। ২২ মিনিটে জুয়েল রানা গোল করে ম্যাচের ভাগ্য প্রায় নির্ধারণই করে দেন। তবে দ্বিতীয়ার্ধে আবাহনী আর গোল বাড়াতে পারেনি। উল্টো ইনজুরি সময় একটি গোল খেয়ে বসে স্বাধীনতা কাপ ও ফেডারেশন কাপ জয়ীরা। শেষ মুহূর্তে গোলটি করেন মেজবাহ।

১৪ ম্যাচে আবাহনীর এটি নবম জয়। ৩১ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে তারা। অন্য দিকে সমান ম্যাচে ১০ পয়েন্ট নিয়ে নবম স্থানে রহমতগঞ্জ।