জাকাতবিষয়ক জরুরি ৮ প্রশ্নের সমাধান

জাকাতবিষয়ক জরুরি ৮ প্রশ্নের সমাধান

ইসলাম ডেস্ক : ১. অপ্রাপ্তবয়স্ক বাচ্চার জাকাত
প্রশ্ন : অপ্রাপ্তবয়স্ক বাচ্চার নেসাব পরিমাণ সম্পদ থাকলে তার ওপর জাকাত ওয়াজিব হবে?
উত্তর : অপ্রাপ্তবয়স্ক বাচ্চা যত সম্পদেরই অধিকারী হোক, তার ওপর জাকাত ওয়াজিব হয় না। মা-বাবারও তার সম্পদ থেকে জাকাত দেওয়ার অধিকার নেই। (বাদায়েউস সানায়ে : ২/৭৯)।

২. ক্রয়কৃত জমির জাকাত
প্রশ্ন : দাম বেড়ে গেলে বিক্রি করে দেবে, এ নিয়তে কেউ জমি কিনলে তার ওপর জাকাত ওয়াজিব হবে?
উত্তর : হ্যাঁ, এমন জমির ওপর জাকাত ওয়াজিব হবে। (আহসানুল ফাতাওয়া : ৪/২৭৭)।

৩. রমজানে জাকাত দিলেও সত্তর গুণ
প্রশ্ন : রমজানে অবশ্য করণীয় ফরজ জাকাত দিলেও সত্তর গুণ সওয়াব হবে?
উত্তর : হ্যাঁ, রমজানে অন্যান্য নফল দানের মতো ফরজ জাকাত দিলেও সত্তর গুণ সওয়াব পাওয়া যাবে। (ফতোয়ায়ে দারুল উলুম দেওবন্দ : ৬/১০০)।

৪. নেসাবের অধিক টাকা একজনকে দেওয়া
প্রশ্ন : নেসাবের চেয়ে অধিক টাকা একসঙ্গে কোনো অভাবগ্রস্ত ব্যক্তিকে দেওয়া যাবে?
উত্তর : নেসাবের চেয়ে অধিক টাকা একসঙ্গে কোনো গরিবকে দেওয়া মাকরুহ। তবে ওই গরিব ব্যক্তি ঋণী হলে এবং ঋণ পরিশোধের জন্য নেসাবের চেয়ে অধিক টাকার দরকার হলে কিংবা এমন অসুস্থ হলে, যার চিকিৎসার জন্য অনেক টাকার দরকার, তাহলে নেসাবের অতিরিক্ত টাকা দিতেও কোনো অসুবিধা নেই। (ফাতহুল কাদির : ২/২৭৮)।

৫. জাকাত দিয়ে কি প্রকাশ করা
প্রশ্ন : জাকাত দিয়ে কি প্রকাশ করা জরুরি?
উত্তর : সুনির্ধারিত যে কোনো খাতেই জাকাত দেওয়া হোক, তা গোপনে হওয়াই ভালো। প্রসিদ্ধির কারণ যেন কোনোভাবেই না থাকে। তবে প্রয়োজন হলে, যেমন—অপবাদ থেকে বাঁচার জন্য কিংবা কাউকে উদ্বুদ্ধ করার জন্য হলে প্রকাশ করার সুযোগ আছে। (সুরা বাকারা : ২৭১, ২৭৪)।

৬. কমিশনের ভিত্তিতে এতিমখানার জন্য জাকাত তোলা
প্রশ্ন : কমিশনের ভিত্তিতে কাউকে দিয়ে এতিমখানার জাকাত তোলা জায়েজ যাবে? এতে জাকাত আদায় হবে?
উত্তর : না, কমিশনের ভিত্তিতে কাউকে দিয়ে জাকাত তোলা এবং জাকাত সংগ্রহকারীর জন্য তা থেকে কমিশন গ্রহণ করা কোনোভাবেই জায়েজ নয়। কমিশন গ্রহণকারী ও এতিমখানার দায়িত্বশীল এমনটা করলে আল্লাহর কাছে জবাদিহি করতে হবে। তবে মানুষের জাকাত আদায় হয়ে যাবে। (আল বাহরুর রায়েক : ৮/২)।

৭. পরিবারভুক্তদের জাকাত দেওয়া
প্রশ্ন : স্ত্রী, দাদা-দাদি, নানা-নানি, মা-বাবা, ছেলেমেয়ে, নাতি-নাতনিকে জাকাত ও সদকাতুল ফিতর দেওয়া যায়?
উত্তর : না, এদের জাকাত ও সদকাতুল ফিতর দেওয়া জায়েজ নয়। (ফতোয়ায়ে হিন্দিয়া : ১/১৮৮)।

৮. স্বজনদের জাকাত দেওয়া
প্রশ্ন : বোন, ভাগ্নি, ফুফু ও খালাকে জাকাত ও সদকাতুল ফিতর দেওয়া যাবে?
উত্তর : হ্যাঁ, এদের জাকাত ও সদকাতুল ফিতর দেওয়া যাবে। (সহিহ ইবনে হিব্বান : ৩৩৩৩)।