স্মার্টফোন দিয়ে ভালো তোলার উপায়

বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক : স্মার্টফোন ফটোগ্রাফি বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। কেননা, এখনকার বেশিরভাগ ফোনেই রয়েছে একাধিক ক্যামেরা। এসব ক্যামেরা হাই-রেজুলেশন সমৃদ্ধ। ফলে স্মার্টফোনের ক্যামেরায় তোলা ছবিতে ডিএসএলআর ক্যামেরার মতো শ্যালো ডেপ্ত অব ফিল্ড পাওয়া যায়। অর্থাৎ ছবিতে সাবজেক্ট ফোকাসে থাকে আর ব্যাকগ্রাউন্ড ঘোলাটে দেখায়।

তবে সব সময় আমরা এই ক্যামেরা দিয়ে ভালো ছবি তুলতে পারি না। সামান্য জ্ঞান স্মার্টফোনে তোলা পোট্রেট ছবিগুলিকে আরও ভালো করে তুলবে। এর সাথেই রয়েছে ‘ট্রাই অ্যান্ড এরর’ পদ্ধতি। জেনে নিন স্মার্টফোন দিয়ে ভালো তোলায় উপায়।

১. শুরুতেই বোঝা প্রয়োজন কোন সাবজেক্টে পোট্রেট মোড কাজ করবে। যেকোন সাবজেক্টের ছবি তুললে ছবির ব্যাকগ্রাউন্ড ঘোলাটে হয়ে যাবে না। সাধারণত মানুষ বা পশুপাখির ছবি তোলার সময় এই মোড সবথেকে ভালো কাজ করে। মানুষের ছবি তোলার সময় ক্যামেরা নিয়ে মুখের সামনে চলে যাবেন না। একটু দূর থেকে ছবি তুলুন। ক্যামেরাটি মুখের উচ্চতার থেকে একটু উঁচুতে রাখার চেষ্টা করুন।

২. ডুয়েল ক্যামেরায় একাধিক নতুন ফিচারের অন্যতম এই ক্যামেরায় ছবিতে কতটা ব্লার চান তা ঠিক করে নিতে পারবেন। দারুণ আলো ও সাবজেক্ট পেলেও ভালো ব্লার এফেক্ট না পাওয়ার কারণে ছবিতে শৈল্পিক ছোঁয়া থাকে না। মানুষের ছবি তোলার সময় যেমন একটু দূর থেকে তুললে ভালো ছবি পাওয়া যায় তেমনি ছোট কোন জিনিসের ছবি তোলার সময় সাবজেক্টের কাছে চলে গেলে দারুন ব্লাস এফেক্ট পাওয়া যাবে।

৩. ভালো ছবির অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ শর্ত ভালো এডিটিং। অ্যানড্রয়েড ফোনে স্ন্যাপসিড বা লাইটরুম এর মতো অ্যাপ দিয়ে এই ছবিকে এডিট করে আরও আকর্ষণীয় করে তুলতে পারেন। সেখানে, ব্রাইটনেস, কনট্রাস্ট, টোনাল ডিটেল, শার্পনেস অ্যাডজাস্ট করে শখের ছবিপে পারফেক্ট লুক দিতে পারবেন।

৪. সাবজেক্ট পছন্দের মতোই জরুরি ব্যাকগ্রাউন্ড পছন্দ করা। চেষ্টা করুন সাবজেক্ট ও ব্যাকগ্রাউন্ডের মধ্যে একটি কনট্রাস্ট রাখতে। এর সাথেই ব্যাকগ্রাউন্ডে রঙিন জিনিস রেখে ছবিকে আকর্ষণীয় করে তুলতে পারবেন। ব্যাকগ্রাউন্ডে কী ধরনের আলো থাকছে তার উপরে ছবি কেমন হবে তা নির্ভর করে। চেষ্টা করুন ব্যাকগ্রান্ডে হালকা আলো বা ছায়া রাখতে। ছবির ব্যকগ্রাউন্ডে সরাসরি সূর্যালোক থাকলে বেশিরভাগ সময় তা ছবিকে নষ্ট করে দেয়।