সন্ত্রাসীদের মদদ বন্ধ না হলে পাকিস্তানের সঙ্গে আলোচনা অসম্ভব: ভারতের সেনাপ্রধান

সন্ত্রাসীদের মদদ দেয়া বন্ধ না করলে প্রতিবেশী পাকিস্তানের সঙ্গে কোনো ধরণের শান্তি আলোচনা সম্ভব নয় বলে জানিয়েছেন ভারতের সেনাপ্রধান বিপিন রাওয়াত। এর আগে পাকিস্তানি গণমাধ্যমের বরাতে জানা গেছে, সম্প্রতি সেদেশের সংসদে দেয়া ভাষণে ভারতের সঙ্গে শান্তি স্থাপনের পক্ষে কথা বলেছেন পাক সেনাপ্রধান কমর জাভেদ বাজওয়া।

কিন্তু জেনারেল কমর জাভেদ বাজওয়ার ভাষণকে খুব একটা গুরুত্ব দিতে রাজি নন ভারতের সেনাপ্রধান জেনালের বিপিন রাওয়াত। পাকিস্তানের কার্যকলাপ দেখে একবারও মনে হয় না যে, তারা সত্যিই শান্তি চায়, মন্তব্য জেনারেল রাওয়াতের।
শুক্রবার ভারত-পাক সীমান্তের খুব কাছে আয়োজিত এক সামরিক মহড়া পরিদর্শনে গিয়েছিলেন তিনি। রাজস্থানের বারমেঢ় এলাকায় থর মরুভূমিতে আয়োজিত ওই মহড়া পর্যবেক্ষণের ফাঁকে মিডিয়ার মুখোমুখি হয়ে তিনি বলেন, পাকিস্তান যতক্ষণ না জম্মু-কাশ্মীরে সন্ত্রাসে মদত দেওয়া বন্ধ করছে, ততক্ষণ তাদের সঙ্গে শান্তি স্থাপনের আলোচনা সম্ভব নয়।
মঙ্গলবার পাক পার্লামেন্টের উচ্চকক্ষে ভাষণ দিয়েছেন সে দেশের সেনাপ্রধান জেনারেল কমর জাভেদ বাজওয়া। প্রতিবেশী দেশগুলির সঙ্গে সম্পর্কের উন্নতিতে পাকিস্তানের জোর দেয়া উচিত বলে মন্তব্য করেন তিনি। পাকিস্তানের সরকার যদি ভারতের সঙ্গে সুসম্পর্কের পথে এগোতে চায়, তা হলে পাক সেনা সে উদ্যোগে সহযোগিতা করবে বলেও জেনারেল বাজওয়া মন্তব্য করেছেন। শুক্রবার ভারতীয় সেনাপ্রধান বলেছেন, ‘আমরাও চাই সম্পর্ক ভালো হোক। কিন্তু যে ধরনের কার্যকলাপ তারা (পাকিস্তান) চালাচ্ছে এবং জম্মু-কাশ্মীরে যেভাবে সন্ত্রাস ছড়ানো হচ্ছে, তাতে মনে হয় না যে তারা বাস্তবে শান্তি চায়।’ টাইমস অব ইন্ডিয়া।