শুভাশিষের আচরণে নিন্দার ঝড়

বিপিএলে আজ রংপুর রাইডার্স ও চিটাগং ভাইকিংসের মধ্যকার ম্যাচটিতে মাশরাফি বিন মুর্তজার দিকে শুভাশিস রায়ের তেড়ে আসার ঘটনায় ফেসবুকে নিন্দার ঝড় বইছে। শুভাশিষ রায়ের এমন কাণ্ড দেখে অবাক হয়েছেন ক্রিকেটপ্রেমীরা।

ফেসবুকে আর আই শাহিন নামের একজন লিখেছেন, ‘এইমাত্র মাশরাফির সাথে শুভাশিসের বেয়াদবি কেউ দেখছেন? আমার মনে হয় মাশরাফির পুরো জীবনে কেউ উনার সাথে এইরকম বেয়াদবি করে নাই’।

প্রত্যয় ওয়াহিদ নামের একজন লিখেছেন, ‘শুভাশিস রয় ক্যাডা? হ্যারে আজীবনের জন্য ব্যান কইরা যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হোক’।

নাহিদ বোরহান লিখেছেন, ‘বেয়াদব’ শুভাশিসকে জাতীয় দলে দেখতে চাই না। মাশরাফির সঙ্গে যে আচারণ করলো এর কোনো ক্ষমা নেই।

শাহাদাত বাপ্পী নামের একজন লিখেন, ‘শুভাশিস এই সাহস কোথা থেকে পেল। এর বিচার চাই’।

বিপিএলে রংপুর রাইডার্সের অধিনায়কের দায়িত্বে রয়েছেন মাশরাফি বিন মুর্তজা। আর চিটাগং ভাইকিংসের হয়ে খেলছেন শুভাশিষ রায়। বুধবার দিনের প্রথম ম্যাচে চিটাগং ভাইকিংসের দেয়া ১৬৭ রানের জয়ের টার্গেটে ব্যাট করছিল রংপুর রাইডার্স। ইনিংসের ১৭তম ওভারে বল করছিলেন শুভাশিষ রায়। তখন ক্রিজে ছিলেন মাশরাফি বিন মুর্তজা ও সোহাগ গাজী। ওভারের তৃতীয় বলে চার মেরেছিলেন মাশরাফি বিন মুর্তজা। চতুর্থ বলটি ইয়র্কার করেন শুভাশিষ। মাশরাফি কোনোমতে বলটি ঠেকিয়ে দেন।

দ্রুত বলটি ধরে মাশরাফির দিকে থ্রো করতে যান শুভাশিষ রায়। এরপর মাশরাফি হাত ইশারা করে তাকে বোলিংয়ে ফিরে যেতে বলেন। কিন্তু শুভাশিষ রায় রংপুর অধিনায়কের দিকে তেড়ে যান। দু’জনের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। পরে আম্পায়ার ও চিটাগং ভাইকিংসের খেলোয়ারা এসে দু’জনকে দুইদিকে সরিয়ে নিয়ে যান।

টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা তুমুল জনপ্রিয় একজন ক্রিকেটার। মার্জিত স্বভাবের মানুষ। দলের সতীর্থদের কাছে ভালোবাসা ও সম্মানের পাত্র তিনি। মাঠে সতীর্থদের মাঝেমধ্যে বকাঝকাও করেন আবার ভালোবেসে বুকে টেনে নেন।