শিশু দ্বিখণ্ডিত করার ঘটনায় ফের তদন্তের নির্দেশ হাই‌কো‌র্টের

নিজস্ব সংবাদদাতা : কুমিল্লায় অপা‌রেশ‌নের সময় এক নারীর জরায়ুসহ নবজাতকের মাথা বিছিন্ন করার ঘটনা পুনরায় তদন্ত করার নি‌র্দেশ দি‌য়ে‌ছেন হাই‌কোর্ট। বিচারপতি সালমা মাসুদ চৌধুরী ও বিচারপতি এ কে এম জহিরুল হকের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ বুধবার এই আদেশ দেন।

একইস‌ঙ্গে বঙ্গবন্ধু শেখ মু‌জিবুর রহমান মেডিক্যাল বিশ্ব‌বিদ্যাল‌য়ের গাইনী বিভাগের প্রধান এবং জাতীয় অধ্যাপক ডা. শায়লা খাতুনকে দিয়ে দুই সদস্যের কমিটি গঠন করে দিয়েছেন আদালত। কমিটিকে এক সপ্তাহের মধ্যে প্রতিবেদন দি‌তে বলা হয়েছে।

আদালতে বিবাদীদের পক্ষে শুনা‌নি ক‌রেন আইনজীবী আবদুল মতিন খসরু।

আগামী বুধবার (১১ এপ্রিল) এই মামলার পরবর্তী শুনানি অনুষ্ঠিত হবে। অপারেশনের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট পাঁচ ডাক্তারকেও ওই দিন আদাল‌তে উপস্থিত থাকতে বলা হয়েছে। তবে কুমিল্লার সিভিল সার্জন ও কুমিল্লা মেডিক্যালের পরিচালককে ব্যক্তিগত হাজিরা থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে।

নবজাতক দ্বিখ‌ন্ডিতের ঘটনায় কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজের করা প্রতিবেদন আদালতে তুলে ধরেন আবদুল মতিন খসরু।

এরপর আদালত বলেন, ‘যেহেতু এ প্রতিবেদনটি তিনজনের করা, আমরা চাচ্ছি বাইরের কাউকে দিয়ে করা একটি তদন্ত প্রতিবেদন আসুক।’

শুনা‌নির সময় আদালতে হাজির ছি‌লেন কুমিল্লার সিভিল সার্জন, কুমিল্লা মেডিক্যালের পরিচালক ও অপারেশনের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট পাঁচ চিকিৎসক।

উল্লেখ্য, গত ২৫ মার্চ সিজার করার সময় এক নারীর জরায়ুসহ নবজাতকের মাথা বিছিন্ন করার ঘটনায় কুমিল্লার সিভিল সার্জন, কুমিল্লা মেডিক্যালের পরিচালক ও অপারেশনের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট ৫ চিকিৎসককে তলব করেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে এই ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে কেন ব্যবস্থা নেওয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুলও জারি করা হয়।

‘ডাক্তার দুই খণ্ড করলেন নবজাতককে’ শিরোনামে প্রকাশিত প্রতিবেদন নজরে নিয়ে আদালত স্বপ্রণোদিত হয়ে ওই আদেশ দি‌য়ে‌ছি‌লেন।

Inline
Inline