শম্ভু-রিমনের হ্যাটট্রিক, বাকিরা হারিয়েছেন জামানত

বরগুনা সংবাদদাতা : আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়ে সংসদ নির্বাচনে টানা তিনবার বিজয় লাভ করে হ্যাটট্রিক করেছেন বরগুনা-১ আসনের বর্তমান ও নবনির্বাচিত সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট ধীরেন্দ্র দেবনাধ শম্ভু ও বরগুনা-২ আসনের শওকত হাচানুর রহমান রিমন। একইসঙ্গে ছয়বার আওয়ামী লীগের মনোনয়ন নিয়ে পাঁচবার বিজয় লাভ করে অনন্য এক রেকর্ড গড়েছেন অ্যাডভোকেট ধীরেন্দ্র দেবনাধ শম্ভু।

অন্যদিকে বরগুনার দুটি সংসদীয় আসনে এ দুই বিজয়ী প্রার্থী ছাড়া অন্য সকল প্রার্থী তাদের জামানত হারিয়েছেন। নির্বাচনী আইন অনুযায়ী, কোনো প্রার্থী যদি প্রদত্ত ভোটের এক-অষ্টমাংশ ভোট না পান তাহলে তার জামানত বাজেয়াপ্ত করা হয়।

বরগুনার রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বরগুনা-১ আসনে মোট প্রার্থীর সংখ্যা ছিল ৭ জন। এ আসনে সর্বমোট ৩ লাখ ৫৩ হাজার ২৯ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছে। এর মধ্যে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী অ্যাডভোকেট ধীরেন্দ্র দেবনাথ শম্ভু ৩ লাখ ১৯ হাজার ৯৫৭ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন।

তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মো. মতিয়ার রহমান তালুকদার পেয়েছেন ১৫ হাজার ৩৪৪ ভোট। এ আসনে জামানত ফেরত পাওয়ার জন্য প্রত্যেক প্রার্থীকে কমপক্ষে ৪৪ হাজার ১২৯ ভোট প্রয়োজন ছিল। কিন্তু বিজয়ী প্রার্থী ছাড়া এ আসনে অন্য কোনো প্রার্থী এ পরিমাণ ভোট না পাওয়ায় তাদের জামানত বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

অন্যদিকে বরগুনা-২ আসনে মোট প্রার্থীর সংখ্যা ছিল ৬ জন। এ আসনে সর্বমোট ২ লাখ ২০ হাজার ৯৮৭ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন। এর মধ্যে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী শওকত হাচানুর রহমান রিমন ২ লাখ ৩২৫ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি মনোনীত প্রার্থী অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন পেয়েছেন ৯ হাজার ৫১৮ ভোট। এ আসনে জামানত ফেরত পাওয়ার জন্য প্রত্যেক প্রার্থীর কমপক্ষে ২৭ হাজার ৬২৩ ভোট প্রয়োজন ছিল। কিন্তু বিজয়ী প্রার্থী ছাড়া অন্য কোনো প্রার্থী সেই পরিমাণ ভোট না পাওয়ায় তাদের জামানত বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।