লেবাননে ফিরলেন আলোচিত প্রধানমন্ত্রী সাদ আল-হারিরি

সৌদি আরবে গিয়ে আকস্মিক পদত্যাগের ঘোষণা দেয়া লেবাননের আলোচিত প্রধানমন্ত্রী সাদ আল-হারিরি দেশে ফিরেছেন। মঙ্গলবার রাতে রাজধানী বৈরুতের আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছান তিনি। তার পদত্যাগের বিবৃতিতে লেবাননে একটি রাজনৈতিক সংকটের সৃষ্টি হয়।

ফ্রান্সের প্যারিস থেকে বৈরুতের আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছার পর হারিরিকে স্বাগত জানান নিরাপত্তাবাহিনীর কর্মকর্তারা। বিমানবন্দর থেকে হারিরি সরাসরি তাঁর বাবা সাবেক প্রধানমন্ত্রী রফিক হারিরির সমাধিতে চলে যান বলে বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

গত ৪ নভেম্বর সৌদি সফরে গিয়ে পদত্যাগের ঘোষণা দেন সাদ হারিরি। পদত্যাগের কারণ হিসেবে নিজের প্রাণনাশের আশঙ্কার কথা জানিয়ে লেবাননের ওপর ‘একচ্ছত্র প্রভাব তৈরির’ জন্য ইরান ও হিজবুল্লাহকে দায়ী করেন তিনি। তার পদত্যাগে লেবাননে রাজনৈতিক সংকট ঘনীভূত হয়। হারিরি লেবাননের বর্তমান অবস্থাকে তার বাবার হত্যার সময়ের অবস্থার সঙ্গে তুলনা করেন।

হারিরি পদত্যাগের ঘোষণা দিলেও তা গ্রহণ করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন লেবাননের প্রেসিডেন্ট মিশেল আউন। তিনি জানান, যতক্ষণ পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী হারিরি প্রেসিডেন্টের কাছে উপস্থিত না হচ্ছেন ততক্ষণ পর্যন্ত তা গ্রহণ করা হবে না। এদিকে হারিরি পদত্যাগের এই ঘটনাকে সৌদির চাপ আখ্যা দিয়ে ক্ষমতাসীন ও বিরোধী রাজনৈতিক দল, সুশীল সমাজসহ বিভিন্ন পক্ষ প্রত্যাখ্যান করেছে।

সৌদি আরব থেকে হারিরি প্যারিসে যান এবং ফরাসী প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। ফান্সে গিয়ে তিনি গণমাধ্যমকে জানিয়েছিলেন, বুধবার লেবাননের স্বাধীনতা দিবসের আগেই বৈরুতে যাবেন। এবং প্রেসিডেন্টের (মিশেল) সঙ্গে বৈঠকের পর লেবাননের রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে নিজের অবস্থান পরিষ্কার করবেন।