রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশকে অব্যাহত সমর্থনের আশ্বাস কানাডার

ঢাকা, ৬ মে, ২০১৮ : সফররত কানাডার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ক্রিস্টিয়া ফ্রিল্যান্ড রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশের প্রতি তাঁর দেশের সমর্থন অব্যাহত রাখার বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আশ্বস্ত করে বলেছেন, কানাডা এই সমস্যার দ্রুত সমাধান চায়।
শনিবার দুপুরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাৎকালে কানাডার পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন,‘ আমরা ১০ লাখেরও অধিক রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দেয়ায় বাংলাদেশের ভূমিকার প্রশংসা করি এবং এই সমস্যার সমাধানে বাংলাদেশকে আমরা সহযোগিতা দিতে প্রস্তুুত রয়েছি।’
শনিবার বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ওআইসি পররাষ্ট্র মন্ত্রী পর্যায়ের ৪৫তম সম্মেলনের উদ্বোধনী পর্ব শেষে এই বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।
বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে বলেন, বর্ষাকাল মৌসুম এবং এ সময়ে অন্যান্য প্রাকৃতিক দুর্যোগ যেমন সাইক্লোনের সম্ভাবনা থাকায় প্রধানমন্ত্রী এ সময় রোহিঙ্গা শরণার্থীদের নিরাপত্তার বিষয় নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন।
শেখ হাসিনা বলেন, বাংলাদেশ সংলাপের মাধ্যমে রোহিঙ্গা সমস্যার শান্তিপূর্ণ সমাধান চায়। যে কারণে বাংলাদেশ মিয়ানমারের সঙ্গে আলোচনার উদ্যোগ নেয় এবং রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনে একটি সমঝোতায় উপনীত হয়।
তিনি বলেন,‘কিন্তু, মিয়ানমার সমঝোতা অনুযায়ী কাজ করেছে না,’।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ সমস্যাটি নিয়ে মিয়ানমারের সীমান্তবর্তী প্রতিবেশী দেশগুলোর সঙ্গেও আলোচনা করছে যারাও এর শান্তিপূর্ণ সমাধানই চাইছে। তিনি এ সময় রোহিঙ্গা ইস্যূতে কফি আনান কমিশনের রিপোর্টের বাস্তবায়নের ওপরও গুরুত্বারোপ করেন।
স্থানীয় জনগণের দুর্দশার প্রসঙ্গ উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, রোহিঙ্গারা চাষাবাদ যোগ্য অনেক জমি দখল করে নেওয়ায় অনেক কৃষক তাদের পেশা হারিয়েছে এবং সরকারকে ত্রাণ সহায়তা প্রদানে বাধ্য করছে।
প্রেস সচিব বলেন, কানাডায় আশ্রয় গ্রহণকারী বঙ্গবন্ধুর খুনীদের দেশে প্রত্যপর্ণের বিষয়টিও বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী উত্থাপন করেন।
ক্রিস্টিয়া এ বিষয়ে কানাডার প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলবেন বলেও প্রধানমন্ত্রীকে আশ্বাস দেন।
পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো.শাহরিয়ার আলম, বাংলাদেশে নিযুক্ত কানাডার হাই কমিশনার বেনোই প্রিফনটেইন,প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব নজিবুর রহমান এবং প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সচিব সাজ্জাদুল হাসান এ সময় উপস্থিত ছিলেন।