রুটির জন্য যুবককে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে হত্যা

 অপরাধ ডেস্ক :

ফরিদপুরে হাতুড়ি দিয়ে পেটানোর পর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। ঘটনার চারদিন পর মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাব্বি নামে ওই যুবকের মৃত্যু হয়।

নিহত রাব্বি শহরের আলীপুর গোরস্থান মোড়ের নিকট অবস্থিত তার মামা বিল্লাল হোসেনের হোটেলে কাজ করতেন। তিনি আলীপুর শাপলা সড়কের মৃত নূরু শেখের ছেলে। পুলিশ তার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে।

কোতয়ালী থানার এসআই বেলাল হোসেন জানান, গত ১০ জানুয়ারি শুক্রবার সন্ধ্যায় ওই হোটেলে কাজ করার সময় স্থানীয় কয়েক যুবক রাব্বিকে হাতুড়ি দিয়ে মারধর করে। এতে গুরুতর আহত হলে তাকে প্রথমে ফরিদপুর জেনারেল হাসপাতাল ও পরে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এসআই আরো জানান, মাদক সংক্রান্ত ঘটনার জেরে রাব্বির ওপর এ হামলা হয় বলে প্রাথমিক তদন্তে জানা গেছে। ঘটনাটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

তবে রাব্বির মামা ও ওই হোটেলের মালিক বিল্লাল জানান, হোটেলে এসে ওই যুবকরা রুটি চাইলে রাব্বির দিতে একটু দেরি হয়। এতে কথাকাটাটির একপর্যায়ে তারা হাতুড়ি নিয়ে এসে রাব্বিকে মারধর করে। এ ঘটনার চারদিন পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

কোতয়ালী থানার এসআই বেলাল হোসেন জানান, হামলাকারীদের সঙ্গে রাব্বির মাদক সংক্রান্ত বিরোধ ছিল বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।