রাশেদের মা-কে ফোন করে গুলি করার হুমকি

প্রাপ্ত তথ্যসূত্রের ভিত্তিতে জানা যায়, বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার সংরক্ষন পরিষদের প্যানেল থেকে ডাকসু নির্বাচনে জিএস পদের প্রার্থী রাশেদের মা-কে অজ্ঞাত পরিচয়ে ফোন করে রাশেদকে গুলি করে মেরে ফেলার হুমকি দেয়া হয়। এরপরেই রাশেদের মা অজ্ঞান হয়ে লুটিয়ে পড়েন।


“আন্দোলনে নেতৃত্ব দিলে আমাকে নাকি গুলি করে মেরে ফেলবে,আর এটাই নাকি লাস্ট ওয়ার্নিং!
এরপর মা স্ট্রোক করে,
২.৫ ঘন্টা পরে জ্ঞান ফিরেছে।” – রাশেদ

ঘটনার অন্তত আড়াই ঘন্টা পর রাশেদের মায়ের জ্ঞান ফেরে। সাধারন ছাত্রদের নিকট তুমুল জনপ্রিয় রাশেদ ১১ই মার্চ অনুষ্ঠিত ডাকসু নির্বাচনে সাধারন সম্পাদক পদে প্রতিদ্বন্দিতা করেন। উক্ত পদে ছাত্রলীগের প্যানেল থেকে দাঁড়ানো গোলাম রাব্বানি বিজয়ী হন।