যশোরে গণপিটুনিতে ডাকাত নিহত

যশোর সংবাদদাতা : যশোরের বাঘারপাড়া উপজেলায় গণপিটুনিতে এক অজ্ঞাত ডাকাত নিহত হয়েছেন। তাঁর বয়স আনুমানিক (৩৫) বছর। বুধবার দিবাগত গভীর রাতে বাঘারপাড়া উপজেলার মাঝিয়ালী গ্রামে ডাকাতির সময় তিনি মারা যান। স্থানীয় এলাকাবাসী মুনছুর আলীর পুত্রবধু স্বপ্না ও পুলিশ জানান, বুধবার দিবাগত গভীর রাতে ৩-৪টি মোটরসাইকেলে করে ৮-১০জন মুনসুর আলীর বাড়িতে আসেন। রাত দুইটার দিকে ডাকাতরা পেছনের দরজা ভেঙে ঘরে প্রবেশ করে। এ সময় ডাকাতেরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে হাজেরা বেগম এবং দীন মোহাম্মাদকে কুপিয়ে আহত করে। এতে হাজেরা বেগম গুরুতর আহত হন। এ সময় মুনসুর আলীর এক ছেলের স্ত্রী তাঁর মালয়েশিয়া প্রবাসী স্বামীর কাছে ডাকাতির খবর জানিয়ে মোবাইল ফোনে খুদে বার্তা পাঠান। তিনি মালয়েশিয়া থেকে এলাকার কয়েকজনকে ডাকাতির খবর জানান। খবর পেয়ে এলাকাবাসীরা ডাকাতদের ধাওয়া দিলে তিন ডাকাত পালিয়ে যান। এসময় এলাকাবাসী এক ডাকাতকে ধরে গণপিটুনি দিলে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে তাঁর লাশ উদ্ধার করে। গুরুতর আহত হাজরা বেগমকে যশোর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

খাজুরা পুলিশ ক্যাম্পের উপ-পরিদর্শক(এসআই) মাসুদুর রহমান বলেন, ডাকাতির সময় গণপিটুনিতে এক ডাকাত ঘটনাস্থলেই মারা গেছেন। তাঁর পরিচয় পাওয়া যায়নি। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য যশোর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।