মাশরাফিদের দুর্দান্ত বোলিং, ক্যারিবীয়দের সংগ্রহ ১৯৫

ক্রীড়া প্রতিবেদক : মাশরাফি বিন মর্তুজা ও মোস্তাফিজুর রহমানের দুর্দান্ত বোলিংয়ে বেশি দূর যেতে পারল না ওয়েস্ট ইন্ডিজ। নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে তাদের সংগ্রহ ১৯৫ রান। সুতরাং, জিততে হলে টাইগারদের করতে হবে ১৩৫।

ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যানদের মধ্যে সর্বোচ্চ রান সংগ্রহকারী ব্যাটসম্যান শাই হোপ। ৪৩ রান করেছেন তিনি। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৪৩ রান করেছেন শাই হোপ। বাংলাদেশের বোলারদের মধ্যে ১০ ওভারে ৩০ রান দিয়ে তিনটি উইকেট নিয়েছেন মাশরাফি বিন মর্তুজা। ১০ ওভারে ৩৫ রান দিয়ে তিন উইকেট শিকার করেছেন মোস্তাফিজুর রহমান।

মেহেদী হাসান মিরাজ এবং সাকিব আল হাসানও ভালো বোলিং করেছেন। ১০ ওভারে ৩০ রান দিয়ে একটি উইকেট নিয়েছেন মিরাজ। ১০ ওভারে ৩৬ রান দিয়ে একটি উইকেট শিকার করেছেন সাকিব। খরুচে বোলিং করেছেন রুবেল। ১০ ওভারে ৬১ রান নিয়ে তিনি উইকেট নিয়েছেন একটি।

রবিবার মিরপুরে বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের মধ্যকার তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচে টস জিতে ব্যাট করতে নামে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সফরকারীদের শুরু থেকেই চাপে রাখেন বাংলাদেশের বোলাররা।

ব্যাটিংয়ে নেমে দলীয় ২৯ রানে প্রথম উইকেট হারায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। উইকেটটি শিকার করেন সাকিব আল হাসান। ইনিংসের অষ্টম ওভারে সাকিবের বলে রুবেল হোসেনের হাতে ধরা পড়েন কাইরান পাওয়েল। ২৭ বল খেলে ১০ রান করেন তিনি।

এরপর ৩৬ রানের জুটি গড়েন ড্যারেন ব্রাভো ও শাই হোপ। ২১তম ওভারে মাশরাফি বিন মর্তুজার বলে দুর্দান্ত এক ক্যাচ নিয়ে ড্যারেন ব্রাভোকে সাজঘরের পথ দেখান তামিম। ৫১ বলে ১৯ রান করেন ব্রাভো।

২১তম ওভারের চতুর্থ ডেলিভারিতে উড়িয়ে মারতে গিয়েছিলেন বাঁ-হাতি ব্রাভো। কিন্তু বল তার ব্যাটের কানায় লেগে উঠে যায় উপরে। লং অফের দিকে বেশ খানিকটা দৌঁড়ে গিয়ে ডাইভ দিয়ে ক্যাচটি তালুবন্দি করেন তামিম।

২৫তম ওভারে আবার আঘাত হানেন মাশরাফি। মেহেদী হাসান মিরাজের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান শাই হোপ। ৫৯ বলে তিনি করেন ৪৩ রান। ২৯তম ওভারে শিমরন হেটমায়ারকে বোল্ড করেন মিরাজ। ১৩ বল খেলে ৯ রান করেন হেটমায়ার।

৩৭তম ওভারে অধিনায়ক মাশরাফির বলে লিটন দাসের হাতে ক্যাচ হন ক্যারিবীয় অধিনায়ক রভম্যান পাওয়েল। ২৫ বলে ১৪ রান করেন তিনি। ৪০তম ওভারে উইকেটের দেখা পান রুবেল হোসেন। লিটন দাসের দারুণ ক্যাচে ফিরে যান মারলন স্যামুয়েলস। ৪৮ বলে ২৫ রান করেন এই ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যান।

সপ্তম উইকেট জুটিতে ৫১ রাজের জুটি গড়েন রস্টন চেজ ও কিমো পল। ৪৮তম ওভারে মিরাজের হাতে ক্যাচ বানিয়ে চেজকে ফেরান মোস্তাফিজুর রহমান। ৩৮ বলে ৩২ রান করেন চেজ।

ইনিংসের শেষ ওভারে দুইটি ‍উইকেট শিকার করেন মোস্তাফিজুর রহমান। ওভারের দ্বিতীয় বলে মিরাজের কিমো পল। ৩০ বলে ৩৬ রান করেন তিনি। চতুর্থ বলে মোস্তাফিজ নিজেই ক্যাচ নিয়ে ফেরান দেবেন্দ্র বিশুকে। এক বলে শূন্য রানে ফেরেন বিশু। ইনিংস শেষে কেমার রোচ ৫ রানে ও ওশানে থমাস শূন্য রানে অপরাজিত থাকেন।

এই ম্যাচে একাদশে পাঁচটি পরিবর্তন এনেছে বাংলাদেশ। একাদশে ফিরেছেন তামিম ইকবাল, সাকিব আল হাসান, মেহেদী হাসান মিরাজ, মোস্তাফিজুর রহমান ও রুবেল হোসেন। বাদ পড়েছেন মোহাম্মদ মিথুন, নাজমুল ইসলাম অপু, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, আবু হায়দার রনি ও আরিফুল হক।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

বাংলাদেশ ইনিংস: ১৯৫/৯ (৫০ ওভার)

(কাইরান পাওয়েল ১০, শাই হোপ ৪৩, ডোয়াইন ব্রাভো ১৯, মারলন স্যামুয়েলস ২৫, শিমরন হেটমায়ার ৬, রভম্যান পাওয়েল ১৪, রস্টন চেজ ৩২, কিমো পল ৩৬, কেমার রোচ ৫*, দেবেন্দ্র বিশু ০, ওশানে থমাস ০*; মেহেদী হাসান মিরাজ ১/৩০, সাকিব আল হাসান ১/৩৬, মোস্তাফিজুর রহমান ৩/৩৫, মাশরাফি বিন মর্তুজা ৩/৩০, রুবেল হোসেন ১/৬১)।