মাঝরাতে শিল্পার বাড়িতে যেতেন সালমান

বিনোদন ডেস্ক : বলিউডের মোস্ট এলিজেবল ব্যাচেলর সালমান খান। বয়সের সংখ্যা ৫০ পেরোলেও বিয়ের নামগন্ধ নিচ্ছেন না। আদৌ তিনি কোনোদিন বিয়ে করবেন কিনা সেটা তার ভক্ত থেকে শুরু করে সমালোচকদের কাছেও একটা বিরাট প্রশ্ন। মাঝে মধ্যে এ নায়িকা সে নায়িকা বা গায়িকার সঙ্গে বিয়ের গুঞ্জন শোনা গেলেও সব খবরকে শেষমেষ ফুঁ মেরে উড়িয়ে দেন বজরঙ্গি ভাইজান।

শুধু বিয়ের খবরই নয়, ইন্ডাস্ট্রির অন্তত হাফ ডজন নায়িকাকে জড়িয়ে সালমানের প্রেমের গুঞ্জনও ছড়িয়েছে। যাদের মধ্যে রয়েছেন ঐশ্বরিয়া রাই, মাধুরী দীক্ষিত, ক্যাটরিনা কাইফ ও জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজের নাম। তবে নতুন করে গুঞ্জন শুরু হয়েছে অভিনেত্রী শিল্পা শেঠিকে নিয়ে। নব্বইয়ের দশকের শেষ দিকে তার সঙ্গেও নাকি ডেট করেছেন তিন খানের অন্যতম সালমান।

শিল্পা শেঠি বিবাহিত। তার স্বামী রয়েছে, সন্তানও আছে। তাই সহকর্মীর সঙ্গে ছড়ানো প্রেমের এমন খবরে অবিবাহিত সালমান খান চুপ থাকলেও মুখ খুলেছেন শিল্পা শেঠি। সম্প্রতি এক সাক্ষাতকারে তিনি বলেন, ‘সালমানের সঙ্গে কখনোই ডেট করিনি। আমাদের সময়ে সহকর্মীদের মধ্যে আস্থা ও অন্তরঙ্গতা ছিল। সেই অর্থে সালমানের সঙ্গে ভালো বন্ধুত্ব ছিল। সে খুব ভাল মানুষ।’

নায়িকা আরও জানান, ‘সালমান প্রায়ই মাঝরাতে আমাদের বাড়িতে এসে উপস্থিত হতো। তখন আমি ঘুমিয়ে থাকতাম। ও আমার বাবার সঙ্গে বসে মদ্যপান করতো, নানা বিষয়ে গল্প গুজব করতো। আমার ভালো করে মনে আছে, বাবা মারা যাওয়ার পর সালমান আমাদের বাড়িতে এসে সোজা বার টেবিলে গিয়ে মাথা নিচু করে কেঁদে ফেলেছিল।’

প্রসঙ্গত, নব্বইয়ের দশকে ‘ফির মিলেঙ্গে’ ও শাদি কারকে ফাঁস গায়া’ ছবিতে জুটি বেঁধে অভিনয় করেছিলেন সালমান খান ও শিল্পা শেঠি। একসঙ্গে কাজ করার সুবাদেই তাদের মধ্যে বন্ধুত্ব গড়ে উঠেছিল। কিন্তু সময়ের সঙ্গে সঙ্গে বর্তমানে কাজে ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন দুজনেই। ফলে বন্ধুত্বের সেই সুতোটাও হয়ে গেছে আলগা।

Inline
Inline