ভোলায় মন্দিরের প্রতিমা ভাংচুর করেছে দুর্বৃত্তরা

এম শাহরিয়ার জিলন, ভোলা সংবাদদাতা : ভোলায় ইলিশা বাজারের দূর্গা মাতার মন্দির ও হরি মন্দিরে প্রতিমা ভাংচুর করেছে দুর্বৃত্তরা। ৩ জুন (রবিবার) গভীর রাতে সদর উপজেলার ২নং পূর্ব ইলিশা ইউনিয়নে দূর্গা মন্দির ও প্রতিমা ভাংচুরের ঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, সদর উপজেলার ২নং পূর্ব ইলিশা ইউনিয়নের ইলিশা বাজারস্থ ‘ইলিশা দূর্গা মন্দির ও হরি মন্দিরে রোববার গভীর রাতে একদল দুর্বৃত্ত প্রবেশ করে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র দিয়ে ভাংচুর করে। মন্দির ভাংচুর করে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। সকালে মন্দির কমিটির সভাপতি ডা: নারায়ণ চন্দ্র মন্ডল মন্দিরে এসে প্রতিমা ভাংচুর অবস্থায় দেখতে পান। পরে তিনি স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, প্রশাসনের লোকজন ও হিন্দু নেতৃবৃন্দকে জানান।
এ খবর পেয়ে আজ সোমবার ভোলা জেলা প্রশাসক মো: মাসুদ আলম ছিদ্দিক, জেলা পুলিশ সুপার মো: মোকতার হোসেন, ভোলা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কামাল হোসেন, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি প্রফেসর দুলাল চন্দ্র ঘোষ, সম্পাদক বাবু গৌরঙ্গ চন্দ্র দে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
মন্দিরের সভাপতি ডা. নারায়ণ চন্দ্র মন্ডল জানান, রবিবার রাত প্রায় ৩টার দিকে একদল দুর্বৃত্ত মন্দিরে প্রবেশ করে প্রতিমা ভাংচুর করেছে। আমরা সকালে ঘুম থেকে উঠে মন্দিরে এসে প্রতিমা ভাঙ্গা অবস্থায় দেখতে পাই। যারা এ ঘটনা ঘটিয়েছে তাদেরকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করেন তিনি।
এ ব্যাপারে ভোলা জেলা পুলিশ সুপার মো: মোকতার হোসেন বলেন, ইলিশা দূর্গা মন্দির ভাংচুরের ঘটনা শুনে আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। বিষয়টি তদন্তাধীন অবস্থায় আছে। যারা এ ঘটনা ঘটিয়েছে তাদেরকে অতিদ্রুত সনাক্ত করে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে।