ভোলায় তীব্র তাপদাহে বিপর্যস্ত জনজীবন

এম শাহরিয়ার জিলন, ভোলা সংবাদদাতা : তীব্র তাপদাহে পুড়ছে ভোলা। এতে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে জনজীবন। বুধবার জেলায় মৌসুমের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা প্রবাহিত হচ্ছে। দিনের তাপমাত্রা ছিলো ৩৫ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা সারাদেশের মধ্যে দ্বিতীয় অবস্থান বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস। আপাতত বৃষ্টির কোন পূর্বাভাস নেই বলেও জানিয়েছেন তারা। এতে প্রচন্ড নাকাল অবস্থা মানুষের।
একদিকে গরম অন্যদিকে বিদ্যুতের ঘন ঘন লোডশেডিংয়ে অতিষ্ট হয়ে পড়েছে মানুষ। রমজানে নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ পাচ্ছেনা মানুষ। এতে ক্ষুদ্ধ হয়ে পড়েছে গ্রাহকরা।
এদিকে গরমের কারণে ক্ষেত-খামারে কাজ করতে পারছে না দিন মজুরেরা। ফসলের ক্ষেত ফেটে চৌচির হয়ে পড়ার উপক্রম দেখা দিয়েছে। অন্যদিকে গরমের কারণে ছড়িয়ে পড়েছে ডায়রিয়া সহ বিভিন্ন রোগ। এতে শিশুদের নিয়ে চিন্তিত হয়ে পড়েছে অভিভাবকরা।
গত সপ্তাহে জেলায় টানার বৃষ্টি হলেও গত ৩/৪ দিন ধরে বৃষ্টির দেখা নেই। এতে গরমের কারনে দিনের বেশী সময় মানুষের নাকাল অবস্থা। গরমের হাত থেকে রেহাই পাচ্ছেন না দিন মজুরেরা। তীব্র গরম অব্যাহত থাকলে ফসলের ক্ষতির আশংকা রয়েছে। এখন মাঠে কৃষকের আউশ, গ্রীষ্মকালীন সবজি, শশা, বাদাম রয়েছে।
এ তাপদাহ আরো সপ্তাহ থাকলে শশা এবং সবজির ক্ষতি হবে বলে জানিয়েছেন উপজেলা কৃষি অফিসার মোঃ রিয়াজ উদ্দিন। তিনি বলেন, গেল বৃষ্টিতে কিছু ফসল ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছিলো, এখন তাপদাহ অব্যাহত থাকলে ফেন ক্ষতি হতে পারে। ভোলা আবহাওয়া অধিদপ্তরের আবহাওয়া সহকারি মাহাবুব আলম বলেন, ভোলার উপর দিয়ে তাপদাহ প্রবাহিত হচ্ছে, আপাতত বৃষ্টির সম্ভাবনা নেই। গত দুইদিন ধরেই তাপমাত্রা ৩৫ ডিগ্রি অতিক্রম করছে।