ভৈরবে শিশু ধর্ষণের অভিযোগ

ভৈরব (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি : কিশোরগঞ্জের ভৈরবে তিন বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার টুকচাঁনপুর গ্রামে এই ধর্ষণের ঘটনাটি ঘটে বলে জানা গেছে। শিশুটিকে রক্তাক্ত অবস্থায় তার পিতা মোবারক মিয়া শুক্রবার সকালে ভৈরব উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে গেলে তার অবস্থা খারাপ দেখে চিকিৎসক শিশুটিকে কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য পাঠিয়ে দেন।

পুলিশ জানায়, শিশুটির অবস্থা গুরুতর বলে কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ শিশুটির চিকিৎসা না করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে দ্রুত পাঠিয়েছেন।

তবে অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ ঘটনার সত্যতা পেলেও অপরাধীকে তার পরিবারের কেউ চিহ্নিত করতে পারেনি বলে পুলিশ জানায়।

জানা গেছে, উপজেলার টুকচাঁনপুর গ্রামের জেলে মোবারক মিয়া ও তার স্ত্রী বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে দুই শিশু সন্তানকে ঘুমন্ত অবস্থায় ঘরের দরজায় শিকল লাগিয়ে কিছুক্ষণের জন্য কাজে বের হয়। কাজ শেষ করে একটু পর দুজনই ঘরে এসে দেখতে পায় শিশুটির যৌনাঙ্গ রক্তাক্ত এবং কান্না করছে শিশুটি। কে বা কারা এই ঘটনা করল শিশুটির মা-বাবা কিছুই বলতে পারছে না।

ভৈরব থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ জানান, আমরা খবর পেয়ে তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে যাই। তবে ঘটনাটি কারা ঘটিয়েছে শিশুটির মা বলতে পারছে না। শিশুর বাবা শিশুটির চিকিৎসা নিয়ে ব্যস্ত থাকায় তার সাথে কথা বলাও সম্ভব হয়নি বলে তিনি জানান।

আজই এ ব্যাপারে মামলা করবে বলে শিশুর মা পুলিশকে জানিয়েছে।