বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের চার শিক্ষার্থীর জামিন নামঞ্জুর

নিজস্ব প্রতিবেদক : ‘নিরাপদ সড়ক চাই’ আন্দোলনের সময় পুলিশের ওপর হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনায় দায়ের হওয়া দুই মামলায় জামিন হয়নি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের চার শিক্ষার্থীর।

রবিবার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট প্রনব কুমার হুই জামিন আবেদন নামঞ্জুর করেন। জামিন নামঞ্জুর হওয়া শিক্ষার্থীরা হলেন- তরিকুল ইসলাম, রেদোয়ান আহমেদ, মাসহাদ মুর্তজা আহাদ ও আজিজুল করিম অন্তর।

আসামি পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী কবির হোসেন ও রোকেয়া করিম। রাষ্ট্রপক্ষে সংশ্লিষ্ট থানার আদালতের নিবন্ধন কর্মকর্তা আবু হানিফ জামিনের বিরোধিতা করেন। উভয় পক্ষের শুনানি শেষে আদালত জামিন নামঞ্জুরের আদেশ দেন।

গত ৯ আগস্ট ওই চার আসামিসহ ২২ জনকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন আদালত। এর আগে গত ৭ আগস্ট ২২ আসামির সবার দুইদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

মামলার অপর আসামিরা হলেন- রিসালাতুন ফেরদৌস, রাশেদুল ইসলাম বায়েজিদ, মুশফিকুর রহমান, ইফতেখার আহম্মেদ, রেজা রিফাত আখলাক, এএইচএম খালিদ রেজা ওরফে তন্ময়, তরিকুল ইসলাম, নূর মোহাম্মদ, সীমান্ত সরকার, ইকতিদার হোসেন, জাহিদুল হক, হাসান , ফয়েজ আহম্মেদ আদনান, সাবের আহম্মেদ উল্লাস, মেহেদী হাসান, শিহাব শাহরিয়ার, সাখাওয়াত হোসেন নিঝুম ও আমিনুল এহসান বায়েজিদ।

২২ আসামির মধ্যে ১৪ জন বাড্ডা থানার এবং আটজন ভাটারা থানার মামলার আসামি। আসামিরা সবাই বেসরকারি ইস্ট ওয়েস্ট, নর্থসাউথ, সাউথইস্ট ও ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ও আহসান উল্লাহ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী।