বাল্যবিয়ের প্রস্তাবে অসম্মতিতে ঘরে আগুন দেয়ার অভিযোগ

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলায় আমেনা আক্তার (১৬) নামে এক মাদ্রাসা পড়ুয়া ছাত্রীকে বিয়ের প্রস্তাব দিলে ছাত্রীর বাবা ছাদেক আলী সরকার তা প্রত্যাখ্যান করায় তাদের বসতঘরে আগুন ও ভাঙচুর করা হয়েছে বলে দাবি ক্ষতিগ্রস্তদের।

উপজেলার লতব্দী ইউনিয়নের রামানন্দ গ্রামে বুধবার রাত ৮টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

উপজেলার লতব্দী ইউনিয়নের রামানন্দ গ্রামের বাবুল সরকারের ছেলে রাসেল সরকার দীর্ঘদিন ধরে আমেনা আক্তারসহ তার বাবা-মায়ের কাছে বিয়ের প্রস্তাব দিয়ে আসছিল।

ছাত্রীর বড় ভাই ছানাউল্লাহ সরকার জানান, দীর্ঘদিন ধরে আমাদের গ্রামের বাবুল সরকারের ছেলে রাসেল সরকার আমার ছোট বোনকে বিয়ের জন্য বিভিন্নভাবে প্রস্তাব দিত। আমরা তার সাথে আমার ছোট বোনকে বিয়ে দেয়ার কথা অস্বীকার করলে তারা আমাদের বাড়িঘর ভাঙচুর করে আগুন লাগিয়ে দেয় এবং আমার ছোট বোনকে কয়েকবার তুলে নেয়ার চেষ্টা করে। আমরা তাতে বাধা দিলে আমাদের মারপিট করে।

আমেনা আক্তারের বাবা ছাদেক আলী সরকার জানান, আমার ছোট মেয়েকে রাসেল সরকার কয়েকবার উঠিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য আমাদের বাড়িতে হামলা করে। আমি ও আমার বাড়ির লোকজন বাধা দিয়েছি বলে আমাদের মারপিট করেছে। এ ব্যাপারে আমরা আইনের অাশ্রয় নিলে দ্বিতীয়বারের মতো আমাদের বসত ঘর ভাঙচুর করে আগুন লাগিয়ে দেয় এবং ঘরে থাকা টাকা পয়সা ও দুটি গরুও নিয়ে যায়।

সিরাজদিখান থানার পরিদর্শক (তদন্ত)হেলাল উদ্দিন জানান, অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।