বান্দরবানে তিনজনের গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার

বান্দরবান সংবাদদাতা : বান্দরবান জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার বাইশালী এলাকা থেকে তিনজনের গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তারা নিজেদের মধ্যে গোলাগুলিতে নিহত হন এবং তারা ডাকাত বলে দাবি করেছে পুলিশ।

এসময় ঘটনাস্থল থেকে তিনটি একনলা বন্দুক, একটি কাটা বন্দুক ও আট রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়।

রবিবার সকালে বাইশালী এলাকার থ্রি-স্টার রাবার বাগানের পাশে দ্বিন মোহাম্মদের এলাকা থেকে গুলিবিদ্ধ লাশগুলো উদ্ধার করা কথা জানিয়েছে পুলিশ।

নিহত তিনজন হলেন, বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির বাইশারী ইউনিয়নের আব্দুস সোবাহানের ছেলে আনোয়ার, কক্সবাজারের রামু উপজেলার গর্জনিয়া এলাকার নুরুল হকের ছেলে আব্দুল হামিদ ও সুপারিকাটা এলাকার সৈয়দ হোসেনের ছেলে বাপ্পি।

নাইক্ষ্যংছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ আলমগীর জানান, রবিবার ভোর ৫টার দিকে ডাকাতি শেষে মালামাল ভাগবাটোয়ারা নিয়ে নিজেদের মধ্যে বিবাদের একপর্যায়ে গোলাগুলিতে জড়িয়ে পড়েন।

স্থানীয়রা তিনজনের লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তিন ডাকাতের লাশ উদ্ধার করে বান্দরবান সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

এ বিষয়ে বান্দরবানের পুলিশ সুপার (এসপি) জাকির হোসেন মজুমদার জানান, নিহত তিনজনই ডাকাতিসহ বিভিন্ন অপকর্মের সঙ্গে জড়িত ছিলেন। রাবার বাগান দখল নিয়ে দুইপক্ষের সংঘর্ষে তারা নিহত হয়েছেন।

আনাইয়্যা ডাকাত ও তার লোকজন, কক্সবাজারের রামু ও বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার বাইশারীসহ আশপাশের এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে অপহরণ, চাঁদাবাজি ও মুক্তিপণ আদায়সহ নানা সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালিয়ে আসছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

তাদের গ্রেপ্তারে পুলিশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

Inline
Inline