বাগদাদে জোড়া আত্মঘাতী বিস্ফোরণে নিহত ৩৮

জোড়া আত্মঘাতী বিস্ফোরণে কেঁপে উঠল বাগদাদ। সোমবার শহরের মধ্যবর্তী এলাকা তায়ারান স্কোয়ারে দুটি আত্মঘাতী হামলায় ৩৮ জন নিহত হয়। আহত হয় অন্তত শতাধিক।

ইরাকের অভ্যন্তরীণ মন্ত্রীর মুখপাত্র জেনারেল সাদ মান এই তথ্য জানান। তবে এখন পর্যন্ত কোনো জঙ্গি গোষ্ঠী হামলার দায় স্বীকার করেনি।

ইরাকের স্বাস্থ্যমন্ত্রী আবদেল ঘনি আল–শাদি নিহতের সংখ্যা ৩৮ এবং আহতের সংখ্যা শতাধিক বলে নিশ্চিত করেছেন। তাকে উদ্ধৃত করে ডেইলি মেইলসহ বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম এই তথ্য জানিয়েছে।

আহতদের মধ্যে অনেকের অবস্থা আশঙ্কাজনক। আহতদের দ্রুত চিকিৎসা চলছে। তবে হতাহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

এক বিবৃতিতে ইরাকি পুলিশ জানিয়েছেম মধ্য বাগদাদের তায়ারান স্কয়ারে বিস্ফোরণের ঘটনাটি ঘটেছে। দুইজন আত্মঘাতী জঙ্গির শরীরে সুইসাইড ভেস্ট ছিল। সকালের দিকে বাজারে প্রচুর মানুষ কেনাকাটার জন্য ভিড় করেছিলেন। ঠিক সেই সময় ভিড়ের মধ্যে মিশে দুই জঙ্গি নিজেদের বিস্ফোরণ ঘটিয়ে উড়িয়ে দেয়। বিস্ফোরণের পরপরই গোটা এলাকা কালো ধোঁয়ায় ডেকে যায়। মানুষের আর্তনাদে সেখানকার বাতাস ভারী হয়ে ওঠে। রক্তাক্ত অবস্থায় লুটিয়ে পড়েন শতাধিক মানুষ। তাঁরা বাঁচার জন্য সাহায্যের আবেদন জানাতে থাকেন। ঘটনার পরপরই সেখানে পৌঁছে যায় দমকল, অ্যাম্বুলেন্স এবং উদ্ধারকারী দল। আহতদের উদ্ধার করে বাগদাদের বিভিন্ন হাসপাতালে পাঠানো হয়। ঘটনাস্থলেই ২৬ জনের ছিন্নভিন্ন ও ঝলসানো দেহ উদ্ধার করা হয়। বিস্ফোরণের তীব্রতায় আশপাশের বাড়িগুলোতে ফাটল দেখতে পাওয়া যায়। নিরাপত্তারক্ষীরা ঘটনাস্থলটি ঘিরে রেখেছেন।

গত শনিবারও আদান শহরে বাগদাদের প্রাদেশিক গভর্নরের গাড়ি লক্ষ্য করে হামলা চালিয়েছিল জঙ্গিরা। সেখানে মৃত্যু হয় আটজনের। আহত হন ১০ জন।

Inline
Inline