ফকিরহাটের পাগলা দেয়াপাড়ায় গৃহবধুর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে

ফকিরহাট (বাগেরহাট) প্রতিনিধি : বাগেরহাটের ফকিরহাট সদর ইউনিয়নের পাগলা দেয়াপাড়া এলাকায় সাজেদা বেগম (২৫) নামের এক গৃহবধুর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। স্বামীর পরিবারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে সে কীটনাশক পান করে আত্মহত্যা করেছে। অপরদিকে মৃতের পিতার পরিবারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে তাকে পরিকল্পিতভাবে মারপিট করে মূখে বিষ ঢেলে হত্যা করা হয়েছে। আসলে সে আহত্মহত্যা করেছে নাকি তাকে পকিল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে এ নিয়ে এলাকায় ধ্রমজালের সৃষ্টি হয়েছে। জানা গেছে, পাগলা দেয়াপাড়া গ্রামের সোহাগ শেখের স্ত্রী এক কন্যা সন্তানের জননী সাজেদা বেগমকে সোমবার রাতে অসুস্থ অবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনার পর তার অবস্থা অবনতি দেখে সেখান থেকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষনা করেন। উল্লেখ্য, চিতলমারী উপজেলার বারামিয়ার বড়ঝিলা গ্রামের ওসমান শেখের কন্যা সাজেদা বেগমকে ফকিরহাটের পাগলা দেয়াপাড়া গ্রামের মোঃ জলিল এর পুত্র সোহাগ শেখ বিবাহ করে। বর্তমানে তাদের শিতিলা জান্নাতুন নামের তিন বছরের এক শিশুকন্যা রয়েছে। সম্প্রতি সোহাগ যৌতুকের জন্য তার স্ত্রী সাজেদা বেগম ও তার পরিবারকে চাপ সৃষ্টি করে আসছিল বলে মৃতের পিতার পরিবারের পক্ষ থেকে জানিয়েছে। দাবীকৃত যৌতুকের টাকা দিতে না পরায় সাজেদা বেগমকে তার স্বামী বিভিন্ন সময়ে কারনে বা অকারনে শারিরিক ও মানষিক নির্যাতন করে।