প্রতিদিন একটি করে ডিম খান!

স্বাস্থ্য ভালো রাখতে নিয়মিত ডিম খাওয়া বেশ উপকারী। ডিম অনেক পুষ্টিগুণ সমৃদ্ধ একটি খাবার। এটি ক্যালসিয়াম, আয়রন ও প্রোটিনের ভালো উৎস। তাই বিশেষজ্ঞরা বলেন, প্রতিদিন ডিম খাওয়া শরীরের প্রয়োজনীয় পুষ্টির চাহিদার অনেকটাই পূরণ করে। খাদ্য তালিকায় প্রতিদিন ডিম রাখার কিছু কারণের কথা জানিয়েছে টাইমস অব ইন্ডিয়া।

চোখ ভালো রাখতে ডিম-
ডিমের মধ্যে রয়েছে লুটেইন এবং জিয়াক্স এনথিন অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। এগুলো চোখের ছানি প্রতিরোধে সাহায্য করে এবং অন্ধত্ব প্রতিরোধ করে।

মস্তিষ্কের জন্য ভালো ডিম-
ডিমের মধ্যে থাকা ভিটামিন ও মিনারেল মস্তিষ্কের কোষকে ভালো রাখে। এটা স্নায়ুকেও সুস্থ রাখে এবং স্মৃতিশক্তি বাড়ায়।

শক্তি জোগাতে ডিম-
ডিম খেলে দেহের ভিটামিন ও মিনারেলের প্রতিদিনের চাহিদা অনেকটাই পূরণ হয়। এটি দেহের কোষের কার্যক্রম ভালো রেখে শক্তি বাড়াতে সাহায্য করে।

পেশি শক্তিশালী করে ডিম-
ডিমের প্রোটিন শরীরের পেশিকে ভালো রাখে। পেশির শক্তি বাড়াতে এবং একে কর্মক্ষম রাখতে ডিম বেশ উপকারী।

ওজন কমায় ডিম-
অনেকের ধারণা ডিম খেলে ওজন বাড়ে। তবে গবেষকরা বলেন, ডিম খেলে দীর্ঘ সময় ধরে পেট ভরা অনুভূত হয়। এর ফলে অন্য খাবার গ্রহণে আগ্রহ কমে যায়। পাশাপাশি দৈনন্দিন ক্যালোরির চাহিদার অনেকটাই পূরণ হয় ডিমের মাধ্যমে।

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় ডিম-
ডিমের মধ্যে রয়েছে ভিটামিন ‘এ’, ভিটামিন ‘বি’-১২ এবং সেলেনিয়াম। এগুলো রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। তাই নিয়মিত ডিম খেলে অনেক উপকারই পাওয়া যায়।