পুলিশি নির্যাতনের শিকার সাংবাদিকের পাশে হবিগঞ্জের এসপি

হবিগঞ্জ সংবাদদাতা : পুলিশি নির্যাতনে শিকার চ্যানেল এস এর সাংবাদিক সিরাজুল ইসলাম জীবনকে হাসপাতালে দেখতে গেলেন হবিগঞ্জের পুলিশ সুপার বিধান ত্রিপুরা।

শনিবার বিকালে তিনি হাসপাতালে জীবনকে দেখতে গিয়ে এই ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেয়া হবে বলে আশ্বাস দেন।

পুলিশ সুপা জানান, কারো ব্যক্তিগত দায় পুলিশ বাহিনী নেবে না। যে অপরাধ করবে তাকে বিন্দুমাত্র ছাড় দেয়া হবে না।

হাসপাতালে পুলিশ সুপার বিধান ত্রিপুরা জীবনের কাছ থেকে নির্যাতনের ঘটনার বর্ণনা শুনেন। এ সময় জীবন কান্নায় ভেঙে পড়লে তাকে সান্ত্বনা দেন পুলিশ সুপার।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আ স ম সামছুর রহমান ভূইয়া, হবিগঞ্জ সদর থানার ওসি ইয়াছিনুল হক, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান নুরুল আমিন ওসমান, হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি ঈসমাইল হোসেন, সাবেক সভাপতি হারুনুর রশীদ চৌধুরী, সাবেক সভাপতি মোহাম্মদ নাহিজ, সাধারণ সম্পাদক রাসেল চৌধুরী, চৌধুরী মাসুদ আলী ফরহাদ, আবু হাসিব খান চৌধুরী পাবেল, প্রদীপ দাস, শাকিল চৌধুরী, মোহাম্মদ নুর উদ্দিন, আব্দুর রউফ সেলিম, জাকারিয়া চৌধুরী, নিরঞ্জন গোস্বামী শুভ প্রমুখ।

গত ৩১ মে রাতে শহরের যশেরআব্দা এলাকায় সাংবাদিক জীবনের বাসায় একদল পুলিশ প্রবেশ করে। এসময় পুলিশ তার ভাইয়ের পকেটে কয়েকটি ইয়াবা ঢুকিয়ে দেয়। সাংবাদিক জীবন প্রতিবাদ করলে পুলিশ তাকেসহ তার ভাইকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। সারারাত জীবনের ওপর অকথ্য নির্যাতন চলে। এই ঘটনায় হবিগঞ্জের সাংবাদিকরা ফুঁসে উঠেন পুলিশের বিরুদ্ধে। তারা পুলিশের ইতিবাচক সংবাদ বর্জনের ঘোষণা দেন।

Inline
Inline