পারিশ্রমিকে স্ত্রীর কাছে পিছিয়ে অভিষেক

বিনোদন ডেস্ক : যেকোনো চলচ্চিত্রে অভিনয়ের ক্ষেত্রে নায়করা সাধারণত বেশি পারিশ্রমিক পেয়ে থাকেন। এই নিয়ে বিশ্বের সকল ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে নায়িকাদের নানা অভিযোগ। বলিউডে এরই মধ্যে এ বিষয় নিয়ে আওয়াজ তুলেছেন দীপিকা পাড়ুকোন, কঙ্গনা রানাওয়াত ও প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। এই বিষয়টিকে তারা লিঙ্গ বৈষম্য হিসেবে উল্লেখ করেছেন।

তবে এমন অনেক নায়কও আছেন যারা নায়িকাদের চেয়ে কম পারিশ্রমিকে কাজ করেছেন। তাদেরই অন্যতম অভিনেতা অমিতাভ বচ্চনের ছেলে অভিষেক বচ্চন। বাবা ইন্ডাস্ট্রিতে সুপারস্টার হয়েছেন, শাহেনশাহ তকমা পেয়েছেন। কিন্তু সেই বাতাস লাগেনি ছেলের অভিষেকের গায়ে। যার কারণে নিজের পারিশ্রমিক তেমন এগিয়ে নিতে পারেননি তিনি।

সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে অভিষেকের ‘মনমরজিয়া’ ছবিটি। বর্তমানে তিনি ব্যস্ত অনুরাগ বসুর পরবর্তী ছবির শুটিং নিয়ে। তারই এক ফাঁকে পরিচালক সুজিত সরকারের সঙ্গে সম্প্রতি এক সাক্ষাতকারে হাজির হন নায়ক। সেখানে তিনি বলেন, স্ত্রী ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চনের সঙ্গে তিনি ৯টি ছবিতে অভিনয় করেছেন। যার আটটিতেই ঐশ্বরিয়ার থেকে তিনি কম পারিশ্রমিক পেয়েছেন।

নায়ক বলেন, ‘বলিউড ছাড়া অন্য ইন্ডাস্ট্রিতেও লিঙ্গ বৈষম্যের কথা শুনেছি। তবে এই ইন্ডাস্ট্রিতেই ঐশ্বরিয়া আমার থেকে বেশি পারিশ্রমিকে কাজ করেছে।’ অভিষেকের মতে, ‘আপনি যদি সুপারস্টার অভিনেত্রী হন তবে পারিশ্রমিক নিয়ে ভাবতে হবে না। কিন্তু ইন্ডাস্ট্রিতে পা দিয়েই যদি কেউ শাহরুখ খানের সমান পারিশ্রমিক দাবি করেন, সেটা একটু বেশি চাহিদা হয়ে যাবে।’

শুধু ঐশ্বরিয়া নন, বলিউডের আরও অনেক অভিনেত্রী আছেন, যারা নায়কদের চেয়ে বেশি পারিশ্রমিকে কাজ করেছেন। সেই তালিকায় রয়েছে কঙ্গনা রানাওয়াত, কারিনা কাপুর, দীপিকা পাড়ুকোন ও মাধুরী দীক্ষিতের নাম। তবে পারিশ্রমিক বিষয়ে নায়িকারা যেভাবে আওয়াজ তোলা শুরু করেছেন, তাতে ভবিষ্যতে এই তালিকা আরও লম্বা হওয়া সময়ের ব্যাপার।