পামেলা-ম্যাডোনাও ধর্ষণের শিকার

বিনোদন ডেস্ক : শৈশবে যৌন হয়রানি বা ধর্ষণ এমন এক ঘটনা যা নির্যাতনের শিকার ব্যক্তির মনে সারাজীবন প্রভাব ফেলে। অনেক তারকার জীবনে এ ঘটনা ঘটলেও অল্প কয়েকজনই তাদের অভিজ্ঞতা জানানোর সাহস পেয়েছেন। এমনই কয়েকজনের কথা তুলে ধরা হলো :

পামেলা অ্যান্ডারসন
‘বে ওয়াচ’ আর ‘প্লেবয়’পত্রিকার অতি জনপ্রিয় নাম পামেলা অ্যান্ডারসন। ১০ বছর বয়সে তার বেবি সিটার পামেলাকে যৌন নির্যাতন করে। এরপর মাত্র ১২ বছর বয়সে পামেলার বান্ধবীর এক বড় ভাই তাকে ধর্ষণ করেছিল।

ম্যাডোনা
বিশ্বখ্যাত পপ শিল্পী ম্যাডোনা ১৯ বছর বয়সে ধর্ষণের শিকার হয়েছিলেন। প্রথমবারের মতো নিউ ইয়র্কে এসে তিনি যে অ্যাপার্টমেন্টটি ভাড়া নিয়েছিলেন, সেখানেই এক ব্যক্তি তার মুখের সামনে ছুরি ধরে তাকে ধর্ষণ করে। সেই দুঃসহ স্মৃ্তি আজও ভুলতে পারেন না ম্যাডোনা।

মেরিলিন মনরো
হলিউড অভিনেত্রী মেরিলিন মনরোর শৈশব কেটেছে একটি এতিমখানায়। আর সেখানেই বহুবার যৌন হয়রানির শিকার হতে হয়েছিল তাকে।

লেডি গাগা
জনপ্রিয় পপ সংগীত শিল্পী লেডি গাগা জানিয়েছেন, ১৯ বছর বয়সে ধর্ষণের শিকার হয়েছিলেন তিনি। এ ঘটনাকে নিজের গান ‘সোয়াইন’এ তুলে ধরেছেন। তার চেয়ে ২০ বছরের বড় সেই ধর্ষক একজন প্রখ্যাত সংগীত পরিচালক, যাকে পরবর্তীতে দেখলে গাগা একেবারে স্তব্ধ হয়ে যেতেন। অনেক থেরাপি নেওয়ার পর এ সমস্যা থেকে মুক্তি পান লেডি গাগা।

অনুরাগ কাশ্যপ
কেবল নারী তারকারাই নন, পুরুষ তারকারাও ছেলেবেলায় যৌন নির্যাতনের শিকার হয়েছেন। এমনই একজন বলিউডের বিখ্যাত চিত্র পরিচালক অনুরাগ কাশ্যপ। ১১ বছর ধরে টানা তার ওপর যৌন নির্যাতন চলেছিল বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন তিনি। তবে সেই দুঃস্বপ্নকে পেছনে ফেলে অচিরেই সামনে এগিয়ে গেছেন অনুরাগ।

অপরাহ উইনফ্রে
টিভি সেলিব্রেটি অপরাহ উইনফ্রে মাত্র ৯ বছর বয়সে পরিবারের অতি ঘনিষ্ঠ এক ব্যক্তির দ্বারা ধর্ষিতা হয়েছিলেন। উইনফ্রেকে তার ১০ থেকে ১৪ বছর পর্যন্ত টানা ধর্ষণ করেছে ওই ব্যক্তি।

সোফিয়া হায়াত
অভিনেত্রী সোফিয়া হায়াতের শৈশবও খুব একটা সুখকর ছিল না। তিনিও যৌন হয়রানির শিকার হয়েছিলেন সেই শৈশবে। মাত্র ১০ বছর বয়সে তার এক চাচা তাকে যৌন নির্যাতন করেছিল।

আনুষ্কা শংকর
প্রখ্যাত সেতার বাদক রবি শংকরের কন্যা আনুষ্কা শংকর সেতার বাজিয়ে আজ নিজেও বিশ্বনন্দিত। পরিবারের অতি ঘনিষ্ঠ এক ব্যক্তির দ্বারা সেই অনুষ্কাও যৌন হয়রানির শিকার হন। কিন্তু পরিবারের অতি বিশ্বস্ত হওয়ায় সেই ব্যক্তির বিরুদ্ধে পরিবারকে কিছু জানাতে পারেননি। এতে তার শৈশবের দিনগুলো ছিল ভীষণ পীড়াদায়ক। এছাড়া তারকা হওয়ায় অনেক খ্যাতিমান ব্যক্তিত্বই তার স্পর্শকাতর অঙ্গ স্পর্শ করেছে বলে জানিয়েছেন আনুষ্কা।

কাল্কি কোচেলিন
এনডিটিভি-র এক অনুষ্ঠানে অনেক তারকা যখন নিজেদের ছোটবেলার মধুর স্মৃতি রোমন্থন করছিলেন, কাল্কি কোচেলিন তখন তুলে ধরেছিলেন নিজের জীবনের এক কষ্টদায়ক অভিজ্ঞতার কথা। ছোটবেলায় যৌন হয়রানির ভয়ঙ্কর স্মৃতি তাকে এখনও তাড়িয়ে বেড়ায় বলে জানিয়েছিলেন বলিউডের এ অভিনেত্রী। নারী অধিকার নিয়ে সর্বদা সোচ্চার কাল্কির অবশ্য স্পর্শকাতর বিষয় নিয়ে খোলাখুলি কথা বলতে কোনোদিনই কোনো সংকোচ ছিল না, আজও নেই৷

Inline
Inline