পলাশবাড়ীতে সিম চাষে আগ্রহী কৃষকরা

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল, গাইবান্ধা সংবাদদাতা : অল্প খরচে অধিক লাভের আশায় বিভিন্ন জাতের সিম চাষে আগ্রহী হয়ে উঠছে সব শ্রেণির কৃষকরা। বসত বাড়ির উঠান, পরিত্যাক্ত জমি, বাগানের ফাঁকা জায়গায় এমনকি আবাদি জমিতে ইদানিং সিম চাষ করে অধিক লাভবান হচ্ছে কৃষকরা। বিশেষ করে উচু এলাকার অনেক প্রান্তিক কৃষক জমি বর্গা নিয়ে সিমসহ বিভিন্ন তরিতরকারি চাষাবাদ করছে। অনেকে রাসয়ানিক সার ব্যবহার না করে কম্পোষ্ট সার ব্যবহার করে বিষমুক্ত সিম চাষ করছে কৃষকরা।

গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে ফিরে দেখা গেছে, কৃষকরা এখন ধান চাষাবাদ না করে বিভিন্ন মৌসুমে ভিন্ন জাতের শাক সবজি ও তরিতরকারি চাষাবাদে ঝুকে পড়ছে।

কথা হয় উপজেলার হোসেনপুর ইউনিয়নের ঝাপড় গ্রামের সিম চাষি শহিদুল ইসলামের সাথে। তিনি জানান, চলতি মৌসুমে তিনি ৪৫ শতক জমিতে সিম চাষ করেছেন। এ পর্যন্ত তার খরচ হয়েছে ২০ হাজার টাকা। গত ১৫ দিন হতে তিনি সিম বিক্রি শুরু করেছেন। ইতিমধ্যে তিনি ৫ হাজার টাকার সিম বিক্রি করেছেন। তিনি আশাবাদি যদি কোন প্রাকৃতিক দুর্যোগ না হয় তাহলে ওই জমির সিম বিক্রি করে ১ লাখ টাকা লাভ করবেন। তিনি আরও বলেন, দিন-দিন সিমের বাজারদর বেড়েই চলছে।

পলাশবাড়ী বাজারের কাঁচামাল ব্যবসায়ী গোফফার ইসলাম জানান, বর্তমান বাজারে প্রতি কেজি সিম বিক্রি হচ্ছে ৮০ হতে ১০০ টাকা দরে। কয়েক দিনের মধ্যে বাজারদর কমে যাবে।

উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ আজিজুল ইসলাম জানান, শাক সবজি ও তরিতরকারি চাষাবাদে অধিক লাভ। সে কারণে কৃষকরা দিন দিন এসব চাষাবাদে ঝুকে পড়ছে। তাছাড়া এসব চাষাবাদে পরিশ্রম এবং খরচও কম হয়।

Inline
Inline