পলাশবাড়িতে পুলিশ সদস্যের বাড়িতে বিয়ের দাবী নিয়ে অনশন

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল, গাইবান্ধা সংবাদদাতা : গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ি উপজেলার সদর ইউনিয়নের বৈরী হরিণমারী গ্রামের আতোয়ার রহমানের ছেলে নুর আলম সিদ্দিক (২৪) এর সহিত গাইবান্ধা সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের বি,এ অধ্যয়নরত ছাত্রী প্রেমিকা বিয়ের দাবী নিয়ে অনশন করছে।
জানা যায়, রাজশাহী রেঞ্জে কর্মরত পুলিশ সদস্য নুর আলম সিদ্দিক ঈদের ছুটিতে বাড়ি এসে গতকাল মঙ্গলবার সকাল হতে ধাপেরহাট নামকস্থানে তার প্রেমিকা হিসেবে দাবীকৃত উক্ত ছাত্রীকে বিয়ের কথা বলে ডেকে এনে ছাত্রীটির সহিত মেলামেশা করে সটকে পড়ার চেষ্টা করলে স্থানীয়দের তোপের মুখে পড়ে।
পরে পলাশবাড়িতে পালিয়ে আসে রসিক প্রেমিক পুলিশ নুর আলম সিদ্দিক, বাড়িতে গিয়ে বিয়ের দাবী জানায় এ ছাত্রী। এ সময় নুর আলম সিদ্দিক বাড়িতে নেই দাবী করে এ ছাত্রীটিকে জনসম্মুখে মারধর করে ও ছাত্রীটির ব্যবহৃত মোবাইলসহ অন্যান্য প্রমাণাদি কেড়ে নেয় প্রেমিক নুর আলম সিদ্দিকের বোন, বোন জামাই, মা ও পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা। এরপরে মার খেয়েও এ বাড়ীর সামনেই বসে থাকে এ ছাত্রী। এ ঘটনার পর অবস্থার বেগতিক দেখে প্রেমিক নুর আলম সিদ্দিকের পরিবারের সদস্যরা নিজ বাড়ি ফাঁকা রেখে পালিয়ে যায়। পরে বাড়ীর ভিতরে প্রবেশ করে পুনরায় বিয়ের দাবী নিয়ে এককভাবে অনশন শুরু করে এ ছাত্রী।
এ বিষয়ে প্রেমিক নুর আলম সিদ্দিকের পরিবারের সদস্যদের সহিত যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও তাদের পাওয়া যায়নি।

Inline
Inline