পঞ্চগড়ে সবজি চাষে কৃষক মোবারকের সাফল্য

পঞ্চগড়, ২৭ জুন, ২০১৮ : জেলার দেবীগঞ্জ উপজেলার একজন সফল চাষি হিসেবে বিষমুক্ত নানা ধরনের সবজি উৎপাদন করে ইতোমধ্যে খ্যাতি অর্জন করেছেন মোবারক আলী। যিনি সারা বছরই নানা ধরনের সবজি ক্ষেত, মাছ চাষ, ধান চাষ নিয়ে ব্যস্ত সময় কাটান। বর্তমানে কয়েক রকম সবজি ক্ষেতে নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছে। একদিকে নানা ধরনের সবজির চাষ অন্যদিকে ধান চাষ । চলতি বছরে সে আদা, হলুদ, করলা, শশা, টমেটো লাউ, মরিচ, বেগুন, শিমসহ নানা ধরনের সবজি উৎপাদন করেছেন। বর্তমানে এখন পর্যন্ত করলা মাঠে রয়েছে। তার উপর বেগুন, শিম, লাউ পরিচর্যায় তিনি ব্যস্ত। অল্প কিছুদিনেই তা শেষ হবে বলে জানান মোবারক আলী। দেবীগঞ্জ উপজেলায় প্রতি বছর প্রচুর পরিমাণ সবজি উৎপাদন হয়। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি।
বর্তমানে দেবীগঞ্জে প্রতিদিন কয়েকশ মণ উৎপাদিত সবজি বিশেষ করে করলা বেগুন, শিম, চাল কুমড়া, লাউ এবং শশা, প্রচুর পরিমাণ পাইকারী হারে বিক্রি করছে ব্যবসায়ীরা। ফলে চাষিরা লাভবান হচ্ছে। মোবারক আলী এর মধ্যে রয়েছেন প্রথম । বিগত প্রায় ১০ বছর ধরে আগাম সবজি চাষ করছেন মোবারক আলী। তিনি দেবীগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়নের পূর্ব দেবীডুবার প্রধান পাড়ার মৃত অমরত আলীর ছেলে। তার তিন ছেলে ও এক মেয়ে। বর্তমানে কনিষ্ঠ ছেলে হামিদুল ইসলামকে নিয়ে তিনি সবজির বিভিন্ন প্রজেক্ট দেখাশুনা করেন।
বিগত ১০ বছর ধরে সবজির প্রজেক্ট করে প্রায় ৪০ বিঘা আবাদি জমি কিনেছেন। তার সাফল্য দেখে উপজেলার চাষিরাও সবজি আবাদের দিকে ঝুঁকছেন। আদা আবাদের মডেল কৃষক হিসেবে টিভি মিডিয়াতেও মোবারক আলীর সাফল্য দেখানো হয়েছে। তিনি জানান, উপজেলার উপ-সহকারী কর্মকর্তা মজিদ সাহেব সব সময় পরামর্শ দিয়ে থাকেন রোগ-বালাই প্রতিকারের জন্য।
উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মজিদ বলেন, মোবারক আলী আদর্শ কৃষক। সব সময় কৃষি অফিসের পরামর্শে আবাদ করেন।
পঞ্চগড় জেলার কৃষি বিভাগের উপ-পরিচালক সামছুল হক জানান, মোবারক আলী কৃষি অফিসের পরামর্শ নিয়ে তিনি বিষ মুক্ত আদা, হলুদ, করলা, শশা, টমেটো লাউ, মরিচ, বেগুন, শিম সহ নানা ধরনের সবজি আবাদ করছেন। এসব সবজির চাহিদা বাজারে বেশি থাকায় ভাল মূল্য মিলে। মোবারক আলীর দেখাদেখি ওই এলাকার আরও অনেক চাষি আধুনিক পদ্ধতিতে চাষাবাদে এগিয়ে এসেছেন।মোবারক আলী জমিতে ফসল ফলিয়ে নিজের ভাগ্য বদলেছেন।

Inline
Inline