নর্দান ইউনিভার্সিটি সফরে রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যসহ ৬ সদস্যের প্রতিনিধিদল

গত ২২ নভেম্বর, ২০১৭ রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর সব্যসাচী বসুরায়চৌধুরী এর নেতৃত্বে ৬ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল নর্দান ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ ভিজিট করেন। নর্দান ইউনিভার্সিটি’র উপাচার্য প্রফেসর ড. আনোয়ার হোসেন অতিথিবৃন্দকে স্বাগত জানান।

প্রফেসর সব্যসাচী বসুরায়চৌধুরী এর সফরসঙ্গী হিসেবে এ সময় তাঁর সঙ্গে ছিলেন রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিজ্যুয়াল আর্টস অনুষদের ডিন প্রফেসর আদিত্য প্রাসদ মিত্র, সেন্টার ফর বাংলাদেশ স্টাডিজ এর প্রাক্তন ডিরেক্টর প্রফেসর চিত্ত ম-ল, বর্তমান ডিরেক্টর আশিষ কুমার দাস, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের প্রধান প্রফেসর ড. ইশানি নস্কর ও ফাইন্যান্স অফিসার দেবাত্ত রায়।

এ সময় নর্দান ইউনিভার্সিটির কর্মকর্তাবৃন্দের সাথে এক মতবিনিময় সভায় মিলিত হন অতিথিবৃন্দ। সভায় এনইউবি ভিসি ড. আনোয়ার হোসেন ভারতের প্রতিনিধিদলের নিকট নর্দান ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর একাডেমিক, প্রশাসনিক ও অবকাঠামোগত বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন। তিনি বলেন, আমাদের দুই বাংলার মানুষের ভাষা ও সংস্কৃতি একই রকম। এ জন্য কলকাতা থেকে যখন আমাদের দেশে কেউ আসে অথবা আমরা যখন কলকাতায় যাই তখন পরস্পরের প্রতি যে হৃদ্যতা প্রকাশ পায় তা অবর্ণনীয়।

রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর সব্যসাচী বসুরায়চৌধুরী অভিমত ব্যক্ত করতে গিয়ে নর্দান ইউনিভার্সিটি’র শিক্ষা কার্যক্রম সম্পর্কে নিজের মুগ্ধতা প্রকাশ করেন। তিনি বলেন, বিশ্বায়নের দাবী পূরণে ও বাস্তবমূখী শিক্ষা প্রদানে নর্দান ইউনিভার্সিটি’র শিক্ষা কারিকুলাম অনুসরণীয় দৃষ্টান্ত উপস্থাপন করেছে।

এ সভায় নর্দান ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর প্রো ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. আনোয়ারুল করীম ও রেজিস্ট্রার মোঃ রাশিদুল ইসলাম অতিথিবৃন্দকে স্বাগত জানিয়ে বক্তব্য উপস্থাপন করেন। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে দি এশিয়ান এজ এর বিশেষ নর্দান ইউনিভার্সিটি’র পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মোসাম্মাৎ হাবিবুন নাহার, এডিশনাল রেজিস্ট্রার মোঃ আবুল হোসেনসহ কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের ও নর্দান ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর মধ্যে সমঝোতা চুক্তি রয়েছে। এ চুক্তির অধীনে উভয় প্রতিষ্ঠান গবেষণা, ছাত্র-শিক্ষকের মানোন্নয়নসহ শিক্ষা সংক্রান্ত বিভিন্ন বিষয় নিয়ে একত্রে কাজ করছে। বিজ্ঞপ্তি: