‘দেশকে বহির্বিশ্বে উন্নয়নের মডেল হিসেবে উপস্থাপন করছেন শেখ হাসিনা’

সিরাজগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য অধ্যপক ড. হাবিবে মিল্লাত মুন্না ইতালিতে সরকারি সফরে এলে স্থানীয় আওয়ামী লীগ আলোচনা সভা ও নৈশভোজের আয়োজন করে।

ইতালি আওয়ামী লীগের সভাপতি ইদ্রিস ফরাজীর সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবালের পরিচালনায় রোমের তরপিনাত্তারায় স্থানীয় একটি রেস্টুরেন্টে উপস্থিত ছিলেন ইতালিতে নিযুক্ত বাংলাদেশ দূতাবাসের রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান সিকদার।

প্রধান অতিথি ডা. হাবিবে মিল্লাত বলেন, দেশকে যিনি নিষ্ঠা ও মেধা দিয়ে সঠিক পথ দেখাতে পারেন তিনি হচ্ছেন- জননেত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা এবং তা তিনি প্রমাণ করেছেন। তিনি দেশকে শুধু উন্নয়নের শিখরেই পৌঁছে দিচ্ছেন না, সাথে সাথে তিনি বাংলাদেশকে বহিঃবিশ্বে উন্নয়নের একটি মডেল হিসেবে উপস্থাপন করছেন।

তিনি বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনা বাংলার মানুষকে আজ পৃথিবীর বুকে মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে শিখিয়েছেন; আগামীতেও স্বপ্ন পূরণের মধ্যদিয়ে বাংলাদেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবেন।
স্বাধীনতার পরাজিত শক্তিরা সব সময়ই চায় দেশের উন্নয়নকে ব্যহত করতে, তার এখনো দেশের ভেতরে এবং বাইরে সোচ্চার। তাই আ’লীগের নেতাকর্মীদের সব সময় দেশরক্ষায় নিয়োজিত থাকতে হবে বলে সর্তক করে দেন। আগামী নির্বাচনে কে অংশগ্রহণ করবে, আর কে করবে না তা তাদের সম্পূর্ণ গণতান্ত্রিক অধিকার; কিন্তু কাউকে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করতে বাধা দিলে তা কখনো মেনে নেয়া যায় না।

স্বাধীনতার পর থেকে দেশের মানুষের সর্বাধিক ভোট পেয়ে আসা আওয়ামী লীগ সংবিধান অনুযায়ী নির্বাচন অনুষ্ঠিত করবে এবং সেই নির্বাচনে ভোটের মাধ্যমেই জনপ্রতিনিধিরা নির্বাচিত হবেন বলে জানান প্রধান অতিথি।

ডা. হাবিবে মিল্লাত ইতালি আওয়ামী লীগ ঐক্যবদ্ধ এবং শক্তিশালী জেনে প্রশংসা করে বলেন, দেশে-প্রবাসে আওয়ামী লীগ এভাবে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করলে কোন বাধাই বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা ও শেখ হাসিনার উন্নত বাংলাদেশ গড়তে কেউ রুখতে পারবে না।
প্রবাসীদের অনেক সমস্যা রয়েছে, তবে তার সমাধান বের করে সরকার সহযোগিতা দেবে বলে মন্তব্য করেন রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান সিকদার। তিনি জানান, এয়ারপোর্টে হয়রানি বন্ধ এবং দেশে ও প্রবাসে সবদিক থেকে অভিবাসীদের সুবিধা বৃদ্ধির জন্য কাজ করে যাচ্ছে সরকার।

এসময় ইতালি আওয়ামী লীগের সভাপতি ইদ্রিস ফরাজী বলেন, আগামী ১১ ফেব্রুয়ারি প্রিয় নেত্রী শেখ হাসিনা ইতালি আসবেন এবং তাকে স্মরণকালের সেরা সংবর্ধনার মধ্যদিয়ে ইতালি আওয়ামী লীগের নেত্রীর প্রতি ভালবাসার বহিঃপ্রকাশ করা হবে।

দলের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল বলেন, কেউ যদি প্রবাসের মাটিতে দেশের বদনাম করতে চায়- তাদের ক্ষমা করা হবে না। আমরা একদিকে প্রধানমন্ত্রীকে সম্মান দিতে জানি, অপর দিকে দেশদ্রোহীদের উচিৎ শিক্ষা দিতেও জানি।
এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন- সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জিএম কিবরিয়া, মহিলা সম্পাদক হোসনে আরা বেগম এবং ইতালি আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি জাহাঙ্গীর ফরাজী, আব্দুর রউফ ফকির, নজরুল ইসলাম মাঝি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবু তাহের, জামান মোক্তার, দিন মোহাম্মদ দিনু, দপ্তর সম্পাদক হাবিব মকদম, মহিলা সম্পাদিকা তুহিনা সুলতানা মলিসহ ইতালি যুবলীগ, রোম মহানগর আওয়ামী লীগ, আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তানসহ অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।