দাবানল নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থ অস্ট্রেলিয়া, বিক্ষোভে সাধারণ মানুষ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :

দীর্ঘ সময় ধরে চলা অস্ট্রেলিয়ার দাবানল নিয়ন্ত্রণে আনতে না পারায় সরকারের ব্যর্থতার অভিযোগ তুলে বিক্ষোভ করেছে সাধারণ মানুষ। শুক্রবার সিডনির রাজপথে নামে কয়েক হাজার মানুষ। বিক্ষোভ হয়েছে অস্ট্রেলিয়ার অন্যান্য শহরেও। এমন পরিস্থিতির মধ্যে দানাবল নিয়ন্ত্রণে নিউ সাউথ ওয়েলসে সেনাবাহিনীর সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে।

স্লোগানে স্লোগানে মুখর অস্ট্রেলিয়ার সিডনির রাজপথ। জলবায়ু পরিবর্তন বিরোধী বিক্ষোভে অংশ নিতে শুক্রবার সিডনির রাস্তায় নামে ১২ হাজারের বেশি মানুষ। নিউ সাউথ ওয়েলসের পার্লামেন্টের সামনে থেকে শুরু করে বিভিন্ন সড়কে বিক্ষোভ র‌্যালি কোরে টাউন হলের সামনে জড়ো হন বিক্ষোভকারীরা।

এসময় প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসনের তীব্র সমালোচনা করেন তারা। দীর্ঘ দিন ধরে চলা দাবানল নিয়ন্ত্রণে আনতে না পারায় ব্যর্থতার অভিযোগ তুলে পদত্যাগের দাবি জানান কেউ কেউ। বিভিন্ন পরিবেশবাদী সংগঠন আয়োজিত এ সমাবেশে জলবায়ু পরিবর্তন ঠেকাতে অস্ট্রেলীয় সরকারকে জরুরি ভিত্তিতে কার্যকর পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানান আন্দোলকারীরা। সিডনির পাশাপাশি মেলবোর্নসহ অস্ট্রেলিয়ার বিভিন্ন শহরে এ বিক্ষোভের আয়োজন করা হয়।

বিক্ষোভ আর প্রতিবাদ ছড়িয়ে পড়লেও অস্ট্রেলিয়াজুড়ে দাবানল অব্যাহত রয়েছে। ভিক্টোরিয়া অঙ্গরাজ্যে পরিস্থিতি খারাপ হওয়ায় আবারও জরুরি সতর্কতা জারি করা হয়েছে। নিউ সাউথ ওয়েলসে আগুন নিয়ন্ত্রণে নতুন করে আরো সেনাবাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে।

গেল কয়েক মাস ধরে চলা অস্ট্রেলিয়ার স্মরণকালের সবচেয়ে ভয়াবহ এ দাবানলে এখন পর্যন্ত মারা গেছে অন্তত ২৬ জন। পুড়ে গেছে ২ হাজারের বেশি ঘর-বাড়ি। এছাড়া, ৬০ হাজার বর্গকিলোমিটারের বেশি বনভূমি পুড়ে গেছে। যা বেলজিয়ামের মতো দুইটি দেশের সমান।