ডিআরইউ অ্যাওয়ার্ড পেলেন জাগো নিউজের জাহাঙ্গীর ও মুরাদ

নিজস্ব প্রতিবেদক : শ্রেষ্ঠ রিপোর্টিংয়ের জন্য ‘ডিআরইউ বেস্ট রিপোর্টিং অ্যাওয়ার্ড-২০১৮’ পেলেন জাগোনিউজ২৪.কম-এর দুই নিজস্ব প্রতিবেদক জাহাঙ্গীর আলম ও মুরাদ হুসাইন। জাহাঙ্গীর আলম ‘তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি’ এবং মুরাদ হুসাইন ‘শিক্ষা’ ক্যাটাগরিতে এ পুরস্কার জিতেছেন।

বৃহস্পতিবার (২৯ নভেম্বর) ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) ২৩তম বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) শুরুর আগে এ পুরস্কার দেয়া হয়। রাজধানীর সেগুন বাগিচার ডিআরইউ প্রাঙ্গণে এ অনুষ্ঠানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক তাদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন। পুরস্কার হিসেবে ক্রেস্ট ছাড়াও সনদপত্র ও অর্থের চেক দেয়া হয়।

জাহাঙ্গীর আলমকে জাগো নিউজে প্রকাশিত ‘আইসিটি আইনে মামলা-১: প্রতিকারের চেয়ে হয়রানি বেশি’, ‘আইসিটি আইনে মামলা-২: দুর্বল তদন্তে পার পেয়ে যায় অপরাধীরা’ ও ‘আইসিটি আইনে মামলা-৩: অপরাধ প্রমাণে ব্যর্থ রাষ্ট্রপক্ষ’ শিরোনামের সিরিজ প্রতিবেদনের জন্য এ পুরস্কার দেয়া হয়।

অপরদিকে ‘কী হচ্ছে কেজি স্কুলে’ শীর্ষক সিরিজের ‘কী পড়ানো হয় কিন্ডারগার্টেন স্কুলে?’, ‘যেভাবে চলে কিন্ডারগার্টেন স্কুল’, ‘আলোর মুখ দেখেনি কেজি স্কুল বন্ধের সরকারি সিদ্ধান্ত’ প্রতিবেদনের জন্য পুরস্কার পেয়েছেন মুরাদ হুসাইন। এবার ‘শিক্ষা’ ক্যাটাগরিতে যৌথভাবে পুরস্কার দিয়েছে ডিআরইউ। ‘শিক্ষা’য় কালের কণ্ঠের শরীফুল আলম সুমনও পুরস্কার পেয়েছেন।

‘প্রিন্ট ও অনলাইন’ বিভাগে দশটি ক্যাটাগরিতে ১৪ জন ও ‘টেলিভিশন ও রেডিও’ বিভাগে পাঁচটি ক্যাটাগরিতে শ্রেষ্ঠ রিপোর্টিংয়ের জন্য ৫ জনকে পুরস্কৃত করেছে ডিআরইউ। প্রতি ক্যাটাগরির পুরস্কারের অর্থমূল্য এক লাখ টাকা।

প্রিন্ট ও অনলাইনে ‘রাজনীতি ও সুশাসন (সরকার, রাজনীতি, প্রশাসন, বিচার ব্যবস্থা, সুশাসন, দুর্নীতি, উন্নয়ন, সংসদ ও নির্বাচন)’ ক্যাটাগরিতে যৌথভাবে পুরস্কার পেয়েছেন বাংলা ট্রিবিউনের শাহেদ শফিক।

‘বাণিজ্য ও অর্থনীতি (ব্যাংক, বীমা, জ্বালানি, পুঁজিবাজার, শিল্প, রাজস্ব খাত, গার্মেন্টস ও জনশক্তি)’ ক্যাটাগরিতে পুরস্কার পেয়েছেন যৌথভাবে ফিন্যান্সিয়াল এক্সপ্রেসের জসিম উদ্দিন হারুন ও জুবায়ের হাসান।

আমার সংবাদের ফারুক আলম ‘সেবা খাত (নগরীর সমস্যা, পানি, বিদ্যুৎ, রাস্তা ঘাট, পরিবহন ও স্বাস্থ্য সেবা)’ ক্যাটাগরিতে পুরস্কার পেয়েছেন। ডেইলি স্টারের ইনাম আহমেদ ও শাখাওয়াত লিটন যৌথভাবে ‘অপরাধ ও আইন-শৃঙ্খলা’ ক্যাটাগরিতে সেরা রিপোর্টিংয়ের পুরস্কার জিতেছেন।

‘নারী, শিশু ও মানবাধিকার’-এ বাংলাদেশের খবরের নাজমুল আহসান রাজু, ‘মুক্তিযুদ্ধ’ ক্যাটাগরিতে যৌথভাবে সমকালের আবু সালেহ রনি ও রাজীব নূর, ‘খাদ্য ও কৃষি’-তে ঢাকা ট্রিবিউনের বিলকিছ ইরানী, ‘ক্রীড়া’য় প্রথম আলোর মাসুদ আলম পুরস্কার পেয়েছেন।

টেলিভিশন ও রেডিও বিভাগে ‘রাজনীতি ও সুশাসন’-এ ডিবিসি বাংলার রাজীব ঘোষ, ‘বাণিজ্য ও অর্থনীতি’-তে চ্যানেল টুয়েন্টিফোরের আবদুল কাইয়ুম তুহিন, ‘সেবা খাত’ এ যমুনা টেলিভিশনের অপূর্ব আলাউদ্দিন, ‘অপরাধ ও আইন শৃঙ্খলা’য় বিবিসি বাংলার ফারহানা পারভীন এবং ‘নারী, শিশু ও মানবাধিকার’ ক্যাটাগরিতে এনটিভির হাসান জাবেদ সেরা রিপোর্টিংয়ের পুরস্কার জিতেছেন।

১২ সদস্যের জুড়ি বোর্ডের চেয়ারম্যান শাহজাহান সরদার অনুষ্ঠানে পুরস্কারপ্রাপ্তদের নাম ঘোষণা করেন। ডিআরইউ-এর সভাপতি সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে জুড়ি বোর্ডের সদস্য ও নিউজ টুডের সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন আহমেদ, ডেইলি অবজারভারের সম্পাদক ও প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবহান চৌধুরী, যুগান্তরের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক সাইফুল আলম, ডিআরইউ-এর সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ শুকুর আলী শুভসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।