ঝিনাইদহে ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা শুরু : সুবিধাভোগির উপচেপড়া ভীড়

ঝিনাইদহ সংবাদদাতা : “উন্নয়নের অভিযাত্রায় অদম্য বাংলাদেশ” এই শ্লোগানকে সামনে রেখে ঝিনাইদহে তিন দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা শুরু হয়েছে।

জেলা প্রশাসনের আয়োজনে এ উপলক্ষে বৃহস্পতিবার দুপুরে শহরের পুরাতন ডিসি কোট চত্বর থেকে একটি বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালীটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে একই স্থানে এসে শেষ হয়। র‌্যালিতে সরকারি-বেসরকারি কর্মকর্তা কর্মচারী, শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ অংশ নেয়।

পরে সেখানে ফিতা কেটে ও বেলুন উড়িয়ে উন্নয়ন মেলার উদ্বোধন করা হয়।

এ মেলার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে জেলা প্রশাসক সরোজ কুমার নাথ, পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামান, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কনক কান্তি দাস, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইদুল করিম মিন্টুসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

উদ্বোধন শেষে অতিথিরা বিভিন্ন দপ্তরের স্টলগুলো পরিদর্শন করেন। পরির্দশন শেষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এদিকে ৪র্থ জাতীয় উন্নয়ন মেলার বিভিন্ন স্টলে সুবিধাভোগির উপচেপড়া ভীড় লক্ষ্য করা গেছে। সকালে মেলা শুরু হওয়ার আগে থেকে সদর উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে সুবিধাভোগিরা স্টলে ভীড় করতে শুরু করেন। সবথেকে বেশি ভীড় লক্ষ্য করা গেছে টেকনিক্যাল ট্রেনিং সেন্টার (টিটিসি), জেলা কর্মসংস্থান অফিস, নির্বাচন অফিসে।

টিটিসি’র স্টলে গিয়ে দেখা যায়, বিভিন্ন বয়সের নারী পুরুষ বিদেশে যাওয়ার জন্য ট্রেনিং ফরম পুরণ করছেন। এছাড়া প্রশিক্ষিত নারী পুরুষদের সনদপত্র প্রদাণ করা হচ্ছে।

টিটিসি’র অধ্যক্ষ রুস্তম আলি জানান, মেলার শুরুর দিন থেকে সুবিধাভোগিদের নানা প্রকার সহযোগিতা করা হচ্ছে। প্রথম দিনে শতাধিক নারী পুরুষ মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশে যাওয়ার জন্য প্রশিক্ষণ গ্রহণের আবেদন, প্রশিক্ষিত দেড় শতাধিক নারী পুরুষদের সনদপত্র প্রদাণ করা হয়েছে, এছাড়াও জাপানী ভাষা শিক্ষা কোর্সের আবেদন ফরম পুরণ করা হয় ও সেফ প্রজেক্টের আওতায় বিভিন্ন ট্রেডে ভর্তি ফরম বিতরণ করা হয়। এছাড়াও বিতরণ করা হয়েছে ৫ হাজার লিফলেট।

জেলা নির্বাচন অফিসে ভোটার আইডি কার্ড সংগ্রহ, সংশোধন করতে ভীড় করছে সাধারণ মানুষ। জেলা প্রশাসন, পুলিশ বিভাগ, ঝিনাইদহ প্রেসক্লাব, জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর, বিদ্যুৎ অফিস, এলজিইডি, সিওসহ বিভিন্ন স্টলে দর্শনার্থীদের ভীড় ছিল চোখে পড়ার মত।