জাতীয় স্মৃতিসৌধে বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের শ্রদ্ধা নিবেদনসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন

মহান বিজয় দিবস- ২০১৭ উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদ দিনব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করেছে। ১৬ ডিসেম্বর সকাল ৮.৩০টায় বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি লায়ন মো. গনি মিয়া বাবুল এর নেতৃত্বে সাভারের নবীনগর থেকে জাতীয় স্মৃতিসৌধ পর্যন্ত বর্ণাঢ্য বিজয় র‌্যালী অনুষ্ঠিত হয়। র‌্যালী শেষে জাতীয় স্মৃতিসৌধে পুস্তস্তবক অর্পণ ও শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।
সকাল ১১.৩০টায় ৩২ ধানমন্ডিস্থ বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুস্পস্তবক অর্পণ, শ্রদ্ধা নিবেদন, ফাতেহা পাঠ ও বিশেষ দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়।
এরপর বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর প্রাঙ্গণে সমাবেশ ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি লায়ন মো. গনি মিয়া বাবুল এর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সহ সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা মো. নুরুল ইসলাম তালুকদার, প্রচার সম্পাদক এডভোকেট খান চমন-ই-এলাহী, নির্বাহী সদস্য মো. মাসুদ আলম, চাঁদপুর জেলা শাখার সহ সভাপতি মো. হাবিবুর রহমান পাটোয়ারী, সদস্য ডা. কাজী ফারুক বাবুল, নাসরীন দিলারা আফরোজ পল্লবী, কবি সালেহ আহমেদ প্রমুখ।
সভাপতির বক্তব্যে লায়ন মো. গনি মিয়া বাবুল বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর আমরা অর্জন করেছি স্বাধীন-সার্বভৌম বাংলাদেশ। বাঙালির ইতিহাসে এই অর্জন সর্বশ্রেষ্ঠ ও মহোত্তম। এই বিজয় আনন্দের কিন্তু ৩০ লক্ষ শহীদ, ২ লক্ষ মা বোনের সম্ভ্রম ও বহু ত্যাগ-তিতীক্ষার বিনিময়ে আমরা এই বিজয় অর্জন করেছি। এই বিজয়ের লক্ষ্য ছিল মানুষের মানবিক মর্যাদা, সাম্য, ন্যায্যতা, গণতন্ত্র সর্বোপরী মানবাধিকার প্রতিষ্ঠিত করা। কিন্তু দীর্ঘ ৪৬ বছরেও আমরা এই লক্ষ্যে পৌছতে পারিনি। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণে প্রত্যেককে সততা, স্বচ্ছতা ও দেশপ্রেমের সাথে স্বীয় দায়িত্ব পালন করার জন্যে তিনি আহ্বান জানান। বঙ্গবন্ধুর জ্যেষ্ঠ কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বর্তমান সরকার বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনা সর্বস্তরে বাস্তবায়নে তৎপর রয়েছে। ফলে দেশ বর্তমানে প্রত্যাশিত উন্নয়ন-অগ্রগতির দিকে এগিয়ে চলেছে। এই উন্নয়ন-অগ্রগতি অব্যাহত রাখতে আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জননেত্রী শেখ হাসিনা ও তার মনোনীতদের নির্বাচিত করার লক্ষ্যে সকলকে সচেষ্ট থাকতে হবে।
বিকালে সংগঠনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আলোচনা সভা ও শহীদদের আত্মার মাগফেরাত এবং দেশ ও জাতির সমৃদ্ধি কামনা করে বিশেষ দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে।

Inline
Inline