জাতীয় অর্থনীতিতে আবাসন খাতের ব্যাপক গুরুত্ব রয়েছে : বাণিজ্যমন্ত্রী

ঢাকা, ২ জুন, ২০১৮ : বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, জাতীয় অর্থনীতিতে আবাসন খাতের ব্যাপক গুরুত্ব রয়েছে। এই খাত চাঙ্গা থাকলে লিংকেজ শিল্প আরো বিকশিত হবে। আবাসন খাতে ১৫ শতাংশ নিবন্ধন ব্যয় থাকতে পারে না উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘আবাসন খাতের বাস্তব সম্মত সমস্যাগুলো নিয়ে গৃহায়নমন্ত্রী, অর্থমন্ত্রীসহ সরকারের উচ্চ পর্যায়ে আলোচনা করা হবে।’
মন্ত্রী আজ ঢাকা ক্লাবে ‘জাতীয় অর্থনীতিতে আবাসন খাত’ র্শীষক গোলটেবিল আলোচনায় এসব কথা বলেন।
রিয়েল এস্টেট এ্যান্ড হাউজিং এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (রিহ্যাব) এবং সেন্টার ফর কমিউনিকেশন নেটওয়ার্ক (সিসিএন) যৌথভাবে এই গোলটেবিল আলোচনার আয়োজন করে। চ্যানেল আই’র উপস্থাপক জিল্লুর রহমানের পরিচালনায় আলোচনায় রিহ্যাব সভাপতি আলমগীর শামসুল আলামিন বলেন, বাজেটে বিভিন্ন খাতে পর্যাপ্ত বরাদ্দ থাকলেও আবাসন খাতে ক্রেতাদের জন্য সরকারি কোন তহবিল নেই। তিনি ১৪ থেকে ১৬ শতাংশের উচ্চ নিবন্ধন কমিয়ে ৭ শতাংশ করা এবং দ্বিতীয় বার ফ্ল্যাট ক্রয়ে নিবন্ধন ব্যয় কমানোর দাবি জানান।
আলোচনায় অংশ নিয়ে রিহ্যাবের সিনিয়র সহ-সভাপতি নুরুন্নবী চৌধুরী (শাওন) এমপি বলেন, গৃহায়ন খাতে ঋণের সুদ হার এক অংকে নামার পর সম্প্রতি আবার তা ডাবল ডিজিটে চলে গেছে। ফলে এই খাত একটু ঘুঁরে দাঁড়ানোর পর আবার স্থবিরতার দিকে যাচ্ছে। তিনি আবাসন খাতকে গুরুত্ব দিয়ে দীর্ঘ মেয়াদে ৫০ হাজার কোটি টাকার একটি তহবিল গঠনের দাবি জানান।
এফবিসিসিআই সভাপতি মো. শফিউল ইসলাম (মহিউদ্দিন) বলেন, নির্মাণ খাতের বেশ কিছু সামগ্রী বিশেষ করে সিমেন্টের দাম এখনও বেশি এটা কমাতে হবে। তিনি ভূমি নিবন্ধন সহজ করার কথাও বলেন।
কাজী ফিরোজ রশীদ এমপি, আমাদের অর্থনীতি সম্পাদক নাইমুল ইসলাম খান, রিহ্যাবের সহ-সভাপতি লিয়াকত আলী ভূইয়া, রাজউকের সাবেক প্রধান প্রকৌশলী এমদাদুল হক, এনার্জি এ্যান্ড পাওয়ার সম্পাদক মোল্লাহ আমজাদ হোসেন, বারভিডার সভাপতি মো. হাবিব উল্লাহ ডন, রি রোলিং মিল এসোসিয়েশনের সহ-সভাপতি মোহাম্মদ আবু বকর সিদ্দিকসহ বিভিন্ন ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ গোল টেবিল আলোচনায় অংশ নেন।

Inline
Inline