চুয়াডাঙ্গায় মাদক বিরোধী অভিযান: ৩’দিনে দামুড়হুদায় ২৯’জন আটক

হাবিবুর রহমান,চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি: চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার মহাবুবুর রহমান (পিপিএম) এর নির্দ্দেশে জেলাকে মাদক মুক্ত করার লক্ষে জেলায় ব্যাপক ভাবে মাদক বিরোধী অভিযান শুরু হয়েছে। তারই ধারাবাহিকতায় দামুড়হুদা মডেল থানার বিচক্ষন ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আকরাম হোসেনের নেতৃত্বে পুলিশ গত ৩ দিনে ২৭ জন মাদক সেবী ও মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে। এদেরকে ভ্রাম্যমান আদলতে বিভিন্ন মেয়াদে বিনাশ্রম কারদন্ড,অর্থদ-সহ মামলা দেওয়া হয়েছে। এরমধ্যে ২০নভেম্বর ১৪জন ২১নভেম্বর ৬জন ও ২২নভেম্ব ৬জন ও সর্বশেষ ২৩নভেম্বর লাল্টু (৪০) নামের এক মাদক ব্যবসায়ী কে আটক করেছে। লাল্টু দামুড়হুদা উপজেলা সদরের দশমী পাড়ার মৃত্যু হাজারী মোল্লার ছেলে। লাল্টুর বিরুদ্ধে দামুড়হুদা মড়েল থানায় মাদক আইনে মামলা হয়েছে। এছাড়াও চুয়াডাঙ্গা মাদক নিয়ন্ত্রক অধিদপ্তরের সদস্যরা নারীসহ ২মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করে।


পুলিশ জানায়, বৃহস্পতিবার ভোররাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিত্বে দামুড়হুদা মডেল থানার এ এস আই সাজেদুল সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে দামুড়হুদা সদরের দশমী পাড়ার লাল্টু(৪০) এর বাড়ীতে অভিযান চালিয়ে ৯০ গ্রাম গাজাসহ লাল্টুকে আটক করে। এব্যাপারে লাল্টুর বিরুদ্ধে দামুড়হুদা মডেল থানায় মাদক আইনে মামলা হয়েছে।
এর আগে সোমবার(২০ নভেম্বর) দামুড়হুদা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আকরান হোসেনের নেতৃত্বে থানার দর্শনা তদন্ত কেন্দের ইনচার্জ সুনিত কুমার গাইন, এস আই বাকি, এস আই আসাদ, (আইসি কার্পাসডাঙ্গা) এস আই আব্দুল গফুর,এস আই তপন কুমার নন্দি, এস আই শ্যামল চন্দ্র সমর্দ্দার, এস আই উত্তম, এ এস আই ইজাজ,এ এস আই সালেকুজ্জামান,এ এস আই নাসির ও মহিউদ্দীন। দিনভর অভিযান চালিয়ে দামুড়হুদার বিভিন্ন এলাকায় অভিয়ান চালিয়ে বৃদ্ধসহ ১৪ জনকে আটক করে। পরে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে সংবাদ দিলে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার নির্বাহী ম্যাজিট্রেট রফিকুল হাসান রাত ৮টার দিকে দামুড়হুদা বাসষ্ট্যান্ডে জন সমুক্ষে ভ্রাম্যমান আদালত বসিয়ে ৮জনকে ১৫ দিনের ও ২জনের ৭দিনের বিনাশ্র কারাদন্ডাদেশ দেন। ৪জনকে সর্তক করে দেওয়া হয়। মঙ্গলবার ৬জন কে আটক করা হয়। এদের মধ্যে এক জনকে ভ্রাম্যমান আদালতে ৫হাজার টাকা জরিমান ও বাকি ৫জনের বিরুদ্ধে মামলা দেওয়া হয়। বুধবার দিনে দামুড়হুদার বিভিন্ন এলাকা থেকে ৬ জনকে আটক করা হয় । এদের বিরুদ্ধে নিয়তিম মামলা দেওয়া হয়েছে। এ ছাড়াও চুয়াডাঙ্গা মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রক অধিদপ্তরের উপ-পরিদর্শক আবুল কালাম আজাদ সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে অভিযান চালিয়ে দামুড়হুদা দলকালক্ষীপুর গ্রামের ওমর আলীর ছেলে ওসমান কে(৩৩) তার বাড়ী থেকে ৪শ’গ্রাম গাজাসহ আটক করে, একই সময় তারা দামুড়হুদার গোপালপুর গ্রামের খাল পাড়ার লিটনের স্ত্রী দুলি খাতুন কে(৪৩) তার বাড়ী থেকে ৩শ’গ্রাম গাজাসহ আটক করে। পরে বিকাল ৩টার দিকে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে সংবাদ দিলে উপজেলা নির্বাহী অফিসার নির্বহী ম্যাজিট্রেট রফিকুল হাসান ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে ভ্রাম্যমান আদালত বসিয়ে ওসমানকে ৬মাস ও দুলি খাতুনকে ৮মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ডাদেশ দেন।