চুয়াডাঙ্গায় বিএনপি জামায়াতের ১৫ জনসহ গ্রেফতার ৪৭

হাবিবুর রহমান, চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি: চুয়াডাঙ্গায় বিএনপি ও জামায়াতের ১৫ জন নেতা-কর্মীসহ ৪৭ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রোববার রাত থেকে সোমবার সকাল পর্যন্ত পুলিশ জেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে। নাশকতা ও নাশকতার চেষ্টার ঘটনায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে মামলা রয়েছে।

গ্রেফতারকৃতরা হল- দামুড়হুদা উপজেলার চারুলিয়া গ্রামের আশরাফ আলির ছেলে নাটুদাহ ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি সামসুল আলাম, ডুগডুগি গ্রামের আব্দুল কাদেরের ছেলে উপজেলা বিএনপির সহসম্পাদক ইউসুফ আলি, জগন্নাথপুর গ্রামের ইমান আলির ছেলে বিএনপি নেতা আমির হোসেন, চন্ডিপুর গ্রামের আইন উদ্দিন মোল্লার ছেলে জামায়াত নেতা সেলিম, দক্ষিণচাঁদপুর গ্রামের মৃত আবুল কাশেমের ছেলে লাবলু, ঈশ্বরচন্দ্রপুর গ্রামের ফারুক হোসেনের ছেলে রফিকুল ইসলাম, একই গ্রামের শামুর ছেলে শাহার আলি, পারকেষ্টপুর গ্রামের শাহার আলির ছেলে রফিকুল, মদনা গ্রামের বক্কার আলির ছেলে আরিফ, কুতুবপুর গ্রামের মাঝেরপড়ার মক্কার আলির ছেলে জিয়া উদ্দিন, একই গ্রামের মুসা করিমের ছেলে আবু সিদ্দিক, হরিরামপুর গ্রামের সিরাজুলের ছেলে আনারুল হক।

জীবননগরে গ্রেফতারকৃতরা হল- জীবননগর পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শামসুজ্জামান ডাবলু।

আলমডাঙ্গায় গ্রেফতারকৃতরা হল- কালিদাসপুর গ্রামের মৃত খেলাফত হোসেনের ছেলে আনোয়ার, তিত্তরবিলা গ্রামের মজিবর হোসেনের ছেলে খাইরুল, কাবিলনগর গ্রামের মৃত আব্দুল করিমের ছেলে জামিরুল ইসলাম, গোবিন্দপুর গ্রামের শেখ দাউদ আলির ছেলে মুক্তারুজ্জামানসহ নিয়মিত মামলায় ও মাদক মামলায় জেলায় মোট ৪৭জনকে গ্রেফতার করা হয়।

সোমবার দুপুরে তাদের সংশ্লিষ্ট আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।
পুলিশ জানায়, রোববার বিকাল থেকে সোমবার সকাল পর্যন্ত জেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে নাশকতা, নাশকতার চেষ্টাসহ বিভিন্ন মামলার ৪৭ আসামীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আব্দুল মোমেন জানান, এ অভিযান অব্যাহত থাকবে। যারা নাশকতার চেষ্টা করবে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।