চিতলমারীতে যৌন হয়রানির অভিযোগে প্রধান শিক্ষক বহিস্কার

বাগেরহাট সংবাদদাতা : চিতলমারী শিশুকানন বিদ্যানিকেতনের প্রধান শিক্ষক সোহাগ মোল্লার বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগের ভিত্তিতে শনিবার দুপুরে স্কুল পরিচালনা কমিটির বৈঠক শেষে ওই শিক্ষককে সাময়িক বহিস্কার করা হয়।
স্কুলের পরিচালক খান হাফিজুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। প্রিয় স্যারের বহিস্কারের খবর শুনে এসময় বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা কান্নায় ভেঙে পড়েন। এ ঘটনায় পরস্পরবিরোধী বক্তব্য পাওয়া গেছে।
শিশুকানন বিদ্যানিকেতনের পরিচালক খান হাফিজুর রহমান স্থানীয় সাংবাদিকদের জানান, স্কুলের প্রধান শিক্ষক সোহাগ মোল্লার বিরুদ্ধে এক ছাত্রীর গার্ডিয়ানকে যৌন হয়রানির অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি বেশ কিছুদিন ধরে স্থানীয়দের মুখেমুখে চাউর হচ্ছে এবং এলাকায় নানা গুঞ্জনের সৃষ্টি করেছে। এই অভিযোগের ভিত্তিতে শনিবার দুপুরে স্কুল পরিচালনা কমিটির বৈঠক হয়। বৈঠক শেষে স্কুল শিক্ষক মোঃ সোহাগ মোল্লাকে সাময়িক বহিস্কার করা হয়েছে।
নাম প্রকাশ না করার শর্তে কয়েকজন অভিভাবক জানান, সোহাগ মোল্লা শিক্ষক হিসেবে ভাল হলেও ইদানিং তার নৈতিক চরিত্র নিয়ে নানা কথা উঠছে।
স্কুলের শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা বলেন, সোহাগ স্যারের বিরুদ্ধে অনৈতিকতার অভিযোগ রহস্যজনক। তিনি বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠাকালিন প্রধান শিক্ষক। প্রতিটা ক্লাশে পরীক্ষার ফলাফল অত্যন্ত সন্তোষজনক। তার কারনেই বিদ্যালয়টি অনেক মানসম্মত। তার অপরাধ আমাদের কাছে পরিস্কার করা হোক।
এ ব্যাপারে প্রধান শিক্ষক সোহাগ মোল্লা সাংবাদিকদের জানান, বিদ্যালয়টি তার প্রাণের চেয়ে প্রিয়। এটাকে গড়তে তার অনেক কষ্ট হয়েছে। কোমলমতি ছাত্র-ছাত্রীর কান্না তাকে ব্যথিত করছে। কোন অপরাধে কর্তৃপক্ষ তাকে বহিস্কারের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন সে বিষয়টিও তিনি অবগত নন।