গাজীপুরে মুরগীর ঘটনাকে কেন্দ্র করে বয়স্কবৃদ্ধ স্বামী-স্ত্রীকে পিটিয়ে মারাত্বক আহত

হাদিউল আলম মোড়ল, (গাজীপুর)  শ্রীপুর থেকে : গাজীপুরের শ্রীপুর পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ডের গিলারচালা (গড়গড়িয়া মাস্টার বাড়ী) গ্রামের শুকুর আলী (৯০) ও তার স্ত্রী (৮৫) ছালেহা খাতুনকে একই এলাকার প্রতিবেশী ইউসুব আলী(৪০) ও তার ছেলে আনোয়ার(২৫) বাড়িতে ঢুকে শুকুর আলী ও তার স্ত্রীকে এলোপাতাড়ি ভাবে পিটিয়ে মারাত্বক আহত করে।
ঘটনা সূত্রে জানা যায়, গত ৭ মে আনুমানিক দুপুর ২টার সময় শুকর আলী ও তার স্ত্রী প্রতিদিনের মত নামাজ পড়ে বিশ্রাম নিচ্ছিল। এমন সময় বাড়ির পাশে সবজি খেতে মোরগ-মুরগীর চেচামেচির শব্দ শুনে ঘর থেকে বের হয়ে দেখতে পায় কুকুর মোরগ-মুরগীদের ধাওয়া করছে। এরই মাঝে ইউসুব আলী ও তার ছেলে আনোয়ার এসে বলে আমাদের মুরগী তোর কি ক্ষতি করছে? ভাই আমরা তো মোরগের ব্যপারে কিছুই জানি না। তা হলে মুরগীরা চেচামিচি করছে কেন? তোরা সব সময় আমাদের মোরগদের মারিস, আজ তোদের ছাড়ব না বলেই হাতে থাকা লাঠি দিয়ে এলোপাতাড়ি ভাবে শুকর আলী কে মারতে থাকে, স্বামীকে বাঁচাতে আসলে স্ত্রীকেও একই ভাবে মারতে থাকে। এক পর্যায়ে তারা দু’জন অজ্ঞান হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পরে। ইউসুব আলী গং প্রভাবশালী তাদের আর এ বাড়িতে থাকতে দিবে না বলে শুকুর আলীর বসত ঘরে তালা লাগিয়ে দেয়। আশ পাশের লোক জন খবর পেয়ে এসে তাদের উদ্ধার করে শ্রীপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

Inline
Inline