গাজীপুরে পোশাক শ্রমিকের গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার

গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার তেলিরচালা এলাকায় নাজমা বেগম ওরফে বুলবুলি নামে এক পোশাক শ্রমিকের গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ। মরদেহ উদ্ধারের পর থেকে নিহতের স্বামী পলাতক রয়েছেন।

রোববার দুপুরে ওই এলাকায় ফজলুল হকের বাড়ির চারতলার একটি কক্ষ থেকে এ মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

নিহত নাজমা বেগম ওরফে বুলবুলি টাঙ্গাইলের মধুপুরের হলুদিয়া এলাকার আব্দুল আজিজ ওরফে লেবু মিয়ার স্ত্রী।

কালিয়াকৈর থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, তেলিরচালা এলাকায় স্বামীর সঙ্গে ভাড়া বাসায় থেকে স্থানীয় একটি পোশাক কারখানায় চাকরি করতেন নাজমা। গত দু’দিন আগে বাসা থেকে তিনি নিখোঁজ হন। রোববার দুপুরে ওই এলাকায় ফজলুল হকের বাড়ির চারতলার একটি কক্ষ থেকে দুর্গন্ধ পেয়ে বাড়ির মালিক ওই কক্ষে উঁকি দিয়ে মরদেহ দেখতে পান। পরে থানায় খবর দিলে পুলিশ বিকেলে গলা কাটা নাজমার মরদেহ উদ্ধার করে।

তিনি আরো জানান, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে ওই গৃহবধূর সঙ্গে এক যুবকের পরকীয়া সম্পর্ক ছিলো। এরই জেরে তাকে ওই বাসায় ডেকে নিয়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে গলা কেটে হত্যা করা হয়।